ব্রাজিলে শুরু হলো দুঙ্গার দ্বিতীয় অধ্যায়

মাথাভাঙ্গা মনিটর: ২০১০ সালের বিশ্বকাপে কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায়ের পর বরখাস্ত করা হয়েছিলব্রাজিলের তখনকার কোচ দুঙ্গাকে। এবার সেলেসাওদের আরও একটি অসফল বিশ্বকাপমিশনের পর ফিরিয়ে আনা হলো ব্রাজিলের সাবেক কোচকেই। নতুন কোচ হিসেবে ১৯৯৪সালের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক দুঙ্গার নামই ঘোষণা করেছে ব্রাজিলের ফুটবলকনফেডারেশন।কোচ হিসেবে খুব একটা অসফল ছিলেন না দুঙ্গা। ২০০৬ সালেদায়িত্ব নেয়ার পর ব্রাজিলকে জিতিয়েছিলেন কোপা আমেরিকা ও কনফেডারেশনস কাপেরশিরোপা। কিন্তু ২০১০ বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায়ের পর পরই সরেদাঁড়াতে হয়েছিল। তাঁর রক্ষণাত্মক কৌশল নিয়েও সেসময় উঠেছিলো অনেক প্রশ্ন।তবে এবারের বিশ্বকাপে ব্রাজিলের লজ্জাজনক পারফরম্যান্সের পর আবার সেইদুঙ্গার ওপরই ভরসা রাখছে ব্রাজিলের ফুটবল কর্তারা।জার্মানির কাছে ৭-১আর হল্যান্ডের বিপক্ষে ৩-০ গোলের দুটি হার ওলোট-পালোট করে দিয়েছে ব্রাজিলীয়ফুটবলকে। দায় মাথায় নিয়ে সরে দাঁড়াতে হয়েছে কোচ লুইস ফেলিপে স্কলারিকে।ব্রাজিল ফুটবল কনফেডারেশনের বিভিন্ন পদেও এসেছে পরিবর্তন।

১৯৯৪ সালেরবিশ্বকাপজয়ী দলের সদস্য গিলমার রিনালদি বসেছেন ব্রাজিলের নির্বাচক দলেরপ্রধান সমন্বয়কারীর আসনে। রিনালদির হাত ধরেই দুঙ্গা চার বছর পর ব্রাজিলজাতীয় দলের কোচের দায়িত্বটি ফিরে পেয়েছেন বলে ধারণা করছেন অনেকে।আগামী বছর কোপা আমেরিকা হবে দুঙ্গার প্রথম বড় মিশন।

Leave a comment

Your email address will not be published.