বৃষ্টি জেতাল ত্রিনিদাদকে

মাথাভাঙ্গা মনিটর: বৃষ্টি বাধায় জয়ের কাছে গিয়েও ব্যর্থ হতে হলো টাইটান্সকে। গতকাল সোমবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ টি-টোয়েন্টিতে ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে তারা হেরে গেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ চ্যাম্পিয়ন ত্রিনিদাদ এন্ড টোবাগোর কাছে। ছয় রানের এ জয়ে এক ম্যাচ হাতে রেখে ৮ পয়েন্টে দু নম্বরে ত্রিনিদাদ। সমান পয়েন্ট নিয়েও শেষ ম্যাচ খেলে ফেলায় সেমিফাইনালের আশা অনেকটাই ক্ষীণ আপাতত তিন নম্বরে থাকা টাইটান্সের। ত্রিনিদাদ এন্ড টোবাগো: ১৮৮/৬ (২০ ওভার), টাইটান্স: ১৫৩/৬ (১৭/২০ ওভার), ফল: ত্রিনিদাদ এন্ড টোবাগো জয়ী ৬ রানে

আগে ব্যাট করতে নেমে মাত্র চার রান যোগ করতে প্রথম উইকেটের পতন। এরপর এভিন লিউইসকে নিয়ে ড্যারেন ব্রাভোর শতরানের জুটি। দ্বিতীয় উইকেটে এই ১০৯ রানের জুটি ত্রিনিদাদের বড় সংগ্রহে মূল ভূমিকা রাখলো। লিউইস হাঁকালেন ৩৫ বলে সাতটি বাউন্ডারি ও পাঁচটি ওভার বাউন্ডারি। ভ্যান ডার মারউইর শিকার হওয়ার আগে করলেন ৭০ রানের সেরা ইনিংস। ব্রাভো দ্বিতীয় সেরা ৬৩ রানে যখন মাঠ ছাড়ছেন তখন দলের সংগ্রহ চার উইকেটে ১৬৪ রান। নাভিন স্টিউয়ার্ট ১৫ বলে ২৩ রান করে শেষদিকে ইনিংসকে আরও টেনে নিলেন। চার বল বাকি থাকতে উইকেট হারান তিনি। ত্রিনিদাদের ব্যাটিঙে কিছুটা বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন মার্চেন্ট ডি ল্যাঙ্গে। তিনটি উইকেট দখল করেন টাইটান্সের এ পেসার। একটি করে পেয়েছেন মরনে মরকেল, হেনরি ডেভিডস ও ভ্যান ডার মারউই। অধিনায়ক ডেভিডসের ২২ বলে ছয় চার ও দুই ছয়ে সাজানো ৪২ রানে শুরুটা ভালো হয়েছিলো দক্ষিণ আফ্রিকান ক্লাবটির। আরেক ওপেনার জ্যাক রুডলফ ৩১ রানে সাজঘরে ফিরলে সুনীল নারিন ও লেন্ডি সিমন্সের বলে ভেঙে পড়ে টাইটান্সের ব্যাটিং লাইনআপ। ফারহান বেহারডিয়েন ও এবি ডি ভিলিয়ার্সের ৪৯ রানের জুটিতে আবারও জয়ের আশা জাগায় তারা। বেহারডিয়েন ২৯ রানে আউট হলেও ভিলিয়ার্স (২৩*) ও মাঙ্গালিসো মেসেহলের (১১*) ব্যাটে পথে ছিল তারা। তিন ওভারে ৩৬ রান দূরে থাকতে বৃষ্টি এসে হানা দেয় আহমেদাবাদের মোতেরা স্টেডিয়ামে। ডাকওয়ার্থ লুইসে হিসাবনিকাশ শেষে দেখা গেল তখনও ছয় রান দূরে টাইটান্স।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *