বিশ্বকাপে মেসির ফেবারিট যারা

মাথাভাঙ্গা মনিটর: এবার বিশ্বকাপ কে জিতবে? উত্তরটা নিখুঁতভাবে দেয়ার সামর্থ্য ছিলো যার, সেই ২০১০ বিশ্বকাপের বিখ্যাত জ্যোতিষী অক্টোপাস পল আর নেই। পলের জায়গায় নিশ্চয়ই আরও কেউ এসে যাবে। এসেছেও। কিন্তু নিখুঁত উত্তর কি দেয়া সত্যিই সম্ভব? সেটিও ফুটবল বিশ্বকাপের মতো একটা মহা আসরে। তবে তাই বলে প্রশ্নটা তো আর বসে থাকতে পারে না। একই রকম প্রশ্ন ছুটে গিয়েছিলো লিওনেল মেসির কাছেও। মেসি এ বিশ্বকাপে তার ফেবারিট হিসেবে দেখেন কাদের? নিজ দল আর্জেন্টিনাকে তো বেছে নিয়েছেনই, মেসি বলেছেন জার্মানি, ব্রাজিল, স্পেনের কথাও। এমনকি শেষ মুহূর্তে বিশ্বকাপের টিকিট পাওয়া ফ্রান্সকেও হিসেবের মধ্যে রেখেছেন আর্জেন্টিনা অধিনায়ক। বুয়েনস এইরেসের একটি রেডিওর সাক্ষাতকারে এ বিশ্বকাপে নিজের ফেবারিটদের নাম বলতে গিয়ে এ পাঁচ দলের কথা বলেছেন মেসি।

মেসি বলেছেন, বিশ্বকাপের ফেবারিট বরাবরের মতো এবারও জার্মানি, ব্রাজিল, স্পেন। প্লে-অফ খেলতে হলে ফ্রান্সও এ তালিকায় থাকবে। আর আর্জেন্টিনা তো অবশ্যই। বাকি দলগুলোকে ফেবারিট তকমা দেয়ার ব্যাখ্যায় না গেলেও আর্জেন্টিনার সম্ভাবনা সম্পর্কে ঠিকই বলেছেন মেসি, ‘আর্জেন্টিনা সবসময়ই শিরোপার দাবিদার, সেটা আমরা বিশ্বকাপে যেভাবেই উঠি না কেন। তা ছাড়া এবার আমাদের দলের গড়ে ওঠাটাও দারুণ হয়েছে। বিশ্বকাপ শুরুর আগ পর্যন্ত দলকে সুসংগঠিত করার সময় আমাদের হাতে থাকছে। আমি মনে করি, আমরা আরও উন্নতি করব, দল হিসেবে বেড়ে উঠবো। বয়স ২৬ চলছে। এ রকম বয়সেই ডিয়েগো ম্যারাডোনা জিতেছিলেন বিশ্বকাপ। মেসি জানেন, এটাই তার সেরা সুযোগ। সম্ভবত শেষ সুযোগও। ‘আমার চেয়ে বেশি করে এ ট্রফি আর কেউই চায় না’ মন্তব্য করে মেসি নিজের মরিয়া ভাবটি বুঝিয়েও দিয়েছেন। গত বড় টুর্নামেন্টগুলোর হতাশা থেকেই খুঁজে নিচ্ছেন প্রেরণা, ‘গত কোপা আমেরিকা এবং আগের দুটো বিশ্বকাপে আমরা আমাদের লক্ষ্য পূরণ করতে পারিনি। দক্ষিণ আফ্রিকা বিশ্বকাপের বাছাইপর্বটাই আমাদের জন্য ঠিক খুবই কঠিন। অবশ্য এবারের বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের বাধা অনায়াসেই পেরিয়ে গেছি। বাছাইপর্ব শেষ হওয়ার আগেই নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিলো আমাদের বিশ্বকাপ। এ কারণে সমর্থকেরাও আমাদের ওপর খুশি।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *