নিউজিল্যান্ডের লিড বাংলাদেশের নাগালে

 

স্টাফ রিপোর্টার: টেস্ট ক্রিকেট রং বদলায়। তৃতীয় দিনেও রঙ বদলেছে। মোটামুটি দ্রুতই নিউজিল্যান্ডের চার উইকেট ফেলে দেয়ার পর পঞ্চম উইকেট জুটি বদলে ফেলল ম্যাচের রঙ। কেন উইলিয়ামসন আর কুরে অ্যান্ডারসন নিউজিল্যান্ডের ধূসর স্কোরকার্ডকে নানা রঙে রাঙালেন। আবার অ্যান্ডারসন আর উইলিয়ামসনকে ফিরিয়ে দেয়ার পর বাংলাদেশ অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম যখন স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছিলেন, তখনই দৃশ্যপটে আবির্ভূত সোধি-ওয়াটলিং জুটি। বিশেষ করে দশে নামা ইশ সোধি ৬৭ বলে ৫৫ রানে অপরাজিত থেকে আক্ষেপটা আরও বাড়িয়ে দিচ্ছে, ‘ইশ, আরও আগে যদি ফেরানো যেত তাঁকে!

দশম ব্যাটসম্যান হিসেবে সোধি যখন মাঠে নামেন, তখনো নিউজিল্যান্ডের লিড বাংলাদেশের নাগালের মধ্যে। কিউইরা এগিয়ে ছিলো ৫৩ রানে।কিন্তু সেই সোধিকে নিয়ে ওয়াটলিং জুটি গড়ে লিডটার আকার তৃতীয় দিন শেষে ১৩৭ রানে নিয়ে গেছেন। ৮৪ রানে অবিচ্ছিন্ন এ জুটিটা দিচ্ছে আরও বিপদের পূর্বাভাস। ৮ উইকেটে ৪১৯ রান নিয়ে দিন শেষ করেছে নিউজিল্যান্ড।

সোধিকে তাড়াতাড়ি ফেরাতে না পারার আক্ষেপ আছে। তবে রং বদলানোর এ ধারা অব্যাহত থাকবে বলে আশাবাদী বাংলাদেশ। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসে তাই আবারও রঙ বদলানোর প্রত্যাশায় ফানুস ওড়ালেন নাসির হোসেন। আশার বাণী শোনালেন ঘুরে দাঁড়ানোর। মিরপুর টেস্ট বাঁচাতে হলে যে এবার ‘রংতুলি’ নিয়ে নেমে পড়তে হবে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের। নয়তো এই টেস্টের ফলাফল যে কিউইদের অনুকূলেই চলে যাবে। নিউজিল্যান্ডের প্রথম ইনিংস দেখে নিজেদের প্রথম ইনিংস নিয়েও সংবাদ সম্মেলনে আক্ষেপ ঝরেছে নাসিরের কণ্ঠে, আমরা এক শর মতো রান কম করেছি।

পার্থক্যটা এসেছে মূলত টেলএন্ড ব্যাটিঙে। মিডল অর্ডারের ব্যর্থতার পর বাংলাদেশের লেজটাও দ্রুতই মুড়ে ফেলতে পেরেছে নিউজিল্যান্ড। আর সেই নিউজিল্যান্ডের টেলএন্ডাররাই দলকে বিপর্যয়ের অন্ধ কুঠুরি থেকে বের করে দেখিয়েছেন আলোর দিশা। সোধি আর ওয়াটলিং যা খেললেন, তা থেকে শেখার তো আছে অনেক কিছুই। নাসিরের হতাশা উইকেট নিয়েও। কই উইকেটে তো স্পিন ধরছে না। কেবল নতুন বলেই কিছুটা বাঁক এলেও পুরোনো বলে ব্যাটসম্যানরা ব্যাট চালিয়ে যাচ্ছেন চোখ বন্ধ করে। নয়তো সোধিকে আউট করতে সাকিব, সোহাগদের মতো স্পিনারদের মাথার ঘাম পায়ে ফেলতে হবে কেন! উইকেট নিয়ে নাসিরের অভিযোগ আছে, এ কথা ঠিক বলা যাবে না। তিনি দোষ দিচ্ছেন বৃষ্টিকে। মিরপুরের উইকেট প্রথম দিনের সকালের পর আজই যা একটু রোদের উত্তাপ পেলো। মাঝখানে বৃষ্টির উত্পাতের কারণেই যে মিরপুরের উইকেট এখনো ‘ব্যাটসম্যান-বান্ধব’, এ কথা ব্যাখ্যা করেই বুঝিয়ে দিলেন নাসির।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *