দেখতে গিয়েবেশ কিছু তরুণ-তরুণীর জীবনেনতুন মোড়

 

মাথাভাঙ্গা মনিটর: বিশ্বকাপেরসেমিফাইনালে জার্মানির কাছে ৭-১ গোলে হেরে চরম অপদস্থ হয়ে শিরোপা জয়েরস্বপ্ন ধূলিসাৎ হয়ে গেছে স্বাগতিক ব্রাজিলের। কিন্তু এ খেলা দেখতে গিয়েবেশ কিছু তরুণ-তরুণীর জীবনে জন্ম নিয়েছে নতুন স্বপ্ন। বিশ্বকাপ মরশুমের এসবরোমান্সের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ব্রাজিল আরআর্জেন্টিনার দু তরুণ তরুণীর প্রেমের কাহিনি। শুধু ব্রাজিলের রাস্তাঘাটেইনয়,বিশ্বকাপকে কেন্দ্র করে অনলাইনেও প্রেমের ফুল ফুটেছে অনেকের জীবনে। ব্রাজিলের ২৫ বছর বয়সী বিয়াত্রিজ গ্রক্সোর সাথে যখনব্রাজিলের ঐতিহাসিক প্রতিদ্বন্দ্বী আর্জেন্টিনার ফ্যান ফ্রেডেরিকোআস্তর্‌গার পরিচয় হয় তখন তারা দুজনের কেউই ভাবেননি- তাদের মধ্যে প্রেমেরসম্পর্ক গড়ে উঠতে পারে।আর্জেন্টিনা থেকে খেলা দেখতে ব্রাজিলে এসেছিলেন২৭ বছর বয়সী ফ্রেডেরিকো। সাও পাওলো যাওয়ার পথে বিয়াত্রিজের নিজের শহরক্যুরিচিবায় তিনি থেমেছিলেন আর সেখানেই মন দেয়া নেয়া। দিনটা ছিলো ১২ জুনটুর্নামেন্ট শুরুর দিন-ব্রাজিলে দিনটা ছিলো ভ্যালেন্টাইনস্‌ ডে। সেই দিনথেকেই দুজনের মেলামেশা শুরু।

বিয়াত্রিজ গ্রক্সো বলেন, আমি যাচ্ছিলামশহরকেন্দ্রে-সেখানে অনেকগুলো বার রয়েছে। ফ্রেডেরিকো আমার কাছে পথ জানতেচাইলে আমি তাকে সাহায্য করতে চেয়েছিলাম। ব্রাজিলীয় আর আর্জেন্টাইনরা সচরাচরপরস্পরকে খোঁচা দিয়ে কথা বলে। কিন্তু আমরা দুজনেই যেহেতু ফুটবল পাগল- তাইআমরা এই বিরোধটাকে মোটেও উস্কে দিতে চাইনি।কলম্বিয়ার সাথে কোয়ার্টারফাইনালের লড়াইয়ে ব্রাজিল ২-১ গোলে জেতার পর এ ভিলা মান্দালিনারপথ-পার্টিতে অংশ নিয়েছিলো ৭০ হাজার মানুষ। এখানেই ছাত্রাবস্থায় আলাপ হয়েছিলোভেনেজুয়েলার আলেহান্দ্রো ইয়েমেস আর আমেরিকান ড্যানিয়েল ভোয়েলিংগারের।আলেহান্দ্রো বলেন, আমরা ঠিক করেছিলাম বিশ্বকাপের সময় আবার দেখা করব-আর এবিশ্বকাপেই আমরা কাছাকাছি এসেছি।শুধু ব্রাজিলের রাস্তাঘাটেই নয়, বিশ্বকাপকে কেন্দ্র করে অনলাইনেও প্রেমের ফুল ফুটেছে অনেকের জীবনে। টিন্ডারনামে একটি অনলাইন অ্যাপ বলছে তাদের সাইটের মাধ্যমে ব্রাজিলে বিশ্বকাপশুরুর পর থেকে আলাপ-পরিচয় ও সম্পর্ক গড়ার হার বেড়ে গেছে শতকরা ৫০ ভাগ।

ব্যবহারকারীদেরএকজন বলেছেন বিশ্বকাপে যেহেতু সারা বিশ্ব থেকে লোক ভিড় জমিয়েছে ব্রাজিলেতাই এ সময়টা তার জন্য সম্পর্ক তৈরির সবচেয়ে ভালো সুযোগ। বিদেশিদের জন্যরয়েছে ভাষার সমস্যা। কিন্তু পর্তুগিজ ভাষা অনুবাদের অ্যাপ ব্যবহার করেঅনায়াসে ব্রাজিলীয়দের সাথে প্রেমালাপ চালিয়েছেন বিদেশিরাও।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *