থারাঙ্গাকে ছাড়াই পাকিস্তান যাবে শ্রীলঙ্কা

মাথাভাঙ্গা মনিটর: বোর্ডের প্রচেষ্টায় শেষ পর্যন্ত লাহোরে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে রাজি হয়েছে শ্রীলঙ্কা দল। গত সোমবার শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের পক্ষ থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। চলমান সফরে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষ ম্যাচটি আগামী ২৯ অক্টোবর লাহোরেই অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

তবে সীমিত ওভার অধিনায়ক উপুল থারাঙ্গা শেষ পর্যন্ত পাকিস্তানে যেতে রাজি হননি। তাই এই সিরিজে হয়তো তাকে বাদ রেখেই অন্য কাউকে নেতৃত্ব দেয়া হতে পারে। শ্রীলঙ্কান বোর্ডের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তান সরকারের সহযোগিতায় আইসিসির স্বাধীন নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞদের সমন্বয়ে গত দুই মাসের পরিস্থিতি মূল্যায়ন করেছে। আইসিসির সঙ্গে এ বিষয়ে আলোচনা শেষে বোর্ড সর্বসমতভাবে ২৯ অক্টোবর লাহোরে খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এমনকি দলের সঙ্গে এসএলসি প্রেসিডেন্ট থিলাঙ্গা সাম্পাথিপালাও যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। আইসিসিও তাদের ম্যাচ অফিসিয়াল পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এক্ষেত্রে সবশেষ বিশ্ব একাদশের সঙ্গে টি-টোয়েন্টি সিরিজে যে মানের নিরাপত্তা দেয়া হয়েছিলো এবারও তাই দেয়া হবে।

সংযুক্ত আরব আমিরাতে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ শুরুর আগেই কথা ছিলো সিরিজে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের খেলা হবে লাহোরে। দীর্ঘদিন পাকিস্তানে নির্বাসনে থাকা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরাতে এটিকে একটি বড় অগ্রগতি হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছিলো। কিন্তু সিরিজের মাঝপথে লঙ্কান ক্রিকেটাররা চিঠি দিয়ে বোর্ডকে জানায় যে, তারা লাহোরে খেলতে রাজি নন।

উল্লেখ্য, ২০০৯ সালের মার্চে লঙ্কান ক্রিকেট দলের ওপর সন্ত্রাসী হামলার পর থেকেই পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট বন্ধ আছে। এরপর থেকে দলটি হোম সিরিজগুলো সংযুক্ত আরব আমিরাতে নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলে থাকে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *