খেলাধুলায় ভালো করতে হলে অনুশীলনের কোনো বিকল্প নেই : এমপি ছেলুন

2nd1 copyচুয়াডাঙ্গায় ৪২তম বাংলাদেশ জাতীয় আন্তঃস্কুল-মাদরাসা গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ সম্পন্ন

ক্রীড়া প্রতিবেদক: ৪২তম বাংলাদেশ জাতীয় আন্তঃস্কুল-মাদরাসা গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার চুয়াডাঙ্গা জেলা পর্যায়ের পুরস্কার বিতরণ গতকাল সোমবার সম্পন্ন হয়েছে। চুয়াডাঙ্গা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত প্রতিযোগিতার সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, খেলোয়াড়দের টার্গেট হওয়া উচিত দর্শকদেরকে ভালো খেলা উপহার দিয়ে জয় ছিনিয়ে আনা। খেলায় জয়-পরাজয় আছে, থাকবে। পরাজিত হয়ে মন খারাপ করে পিছুপা হলে চলবে না। পরাজয় দিয়ে জয়ের ভিত রচনা করতে হবে। তবে খেলাধুলায় ভালো করতে হলে অনুশীলনের বিকল্প নেই। আমাদের অনুশীলনের জন্য মাঠের কোনো অভাব নেই।

বিশেষ অতিথি চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার আব্দুর রহিম শাহ চৌধুরী বলেন, চুয়াডাঙ্গা ফুটবল অঙ্গনের উজ্জ্বল নক্ষত্র মামুন জোয়ার্দ্দার এ চুয়াডাঙ্গারই সন্তান। তোমাদের মতো আন্তঃস্কুল প্রতিযোগিতার মধ্যদিয়েই তিনি নিজেকে উজ্জ্বলভাবে মেলে ধরতে পেরেছেন। তবে আমি বিশ্বাস করি তোমাদের মধ্যেই অনেক মামুন জোয়ার্দ্দার লুকিয়ে আছে। ভালো মতো খেলোয়াড় সুলভ মনোভাব নিয়ে অনুশীলন করলে তোমারাও মামুন জোয়ার্দ্দার হতে পারবে। সেই সাথে মাদককে না বলে  লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলাধুলামুখি হতে হবে।

অনুষ্ঠানে অন্যতম বিশেষ অতিথি জাতীয় ক্রীড়া সংগঠক চুয়াডাঙ্গা পৌর মেয়র রিয়াজুল ইসলাম জোয়ার্দ্দার টোটন বলেন, ফুটবল বাংলার খেলা, বাঙালির খেলা, বাংলার সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা। সরকার প্রতিবছর শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সরকারিভাবে এ প্রতিযোগিতার আয়োজন করে লেখাপড়ার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের মানসিক ও শারীরিকভাবে গড়ে উঠতে সহায়তা করছে।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন চুয়াডাঙ্গা জেলা শিক্ষা অফিসার খন্দকার আলাউদ্দীন আল-আজাদ। অন্যতম বিশেষ অতিথি ছিলেন চুয়াডাঙ্গা অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এসএম রেজাউল করিম। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর সিদ্দিকুর রহমান, সরকারি মহিলা কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ এস এম ইসরাফিল, চুয়াডাঙ্গা জেলা ক্রীড়া সংস্থার সকল সদস্য, জেলার বিভিন্ন স্কুল-মাদরাসার প্রধানগণ ও সহকারী শিক্ষক-শিক্ষিকাগণ। বক্তব্য পর্ব শেষে অতিথিগণ জেলা পর্যায়ের বিভিন্ন ইভেন্টে বিজয়ীদের মধ্যে  পুরস্কার বিতরণ করেন। প্রতিযোগিতার সবচেয়ে বড় আকর্ষণ বালক ফুটবলে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার সরোজগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয় ১-০ গোলে দামুড়হুদা উপজেলার দক্ষিণচাঁদপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়কে হারিয়ে জেলা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে। সরোজগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের পক্ষে একমাত্র গোলটি করে নবম শ্রেণির ছাত্র খাইরুল বাশার। বালিকা ফুটবলে দামুড়হুদার কলাবাড়ি রামনগর মাধ্যমিক বিদ্যালয় টাইব্রেকারে ৪-২ গোলে সদর উপজেলার খাড়াগোদা মাধ্যমিক বিদ্যালয়কে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়। এছাড়া বালিকা হ্যান্ডবল ও কাবাডিতে সদর উপজেলার আলুকদিয়া রোমেলা খাতুন মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, বালক হ্যান্ডবলে নীলমণিগঞ্জ মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও বালক কাবাডিতে দামুড়হদার গোবিন্দহুদা মাধ্যমিক বিদ্যালয় চ্যাম্পিয়ন হয়।

উল্লেখ্য গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতায় বালক-বালিকা হ্যান্ডবল, ফুটবল, কাবাডি ও বালকদের জন্য সাঁতার  ১৭টি ইভেন্টের প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানটি উপস্থাপন করেন চুয়াডাঙ্গা একাডেমীর সহকারী শিক্ষক নূর হোসেন।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, মেহেরপুর জেলা স্কুল ও মাদরাসা ক্রীড়া সমিতির উদ্যোগে মেহেরপুর সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল সোমবার মেহেরপুর জেলা স্কুল ও মাদরাসা ক্রীড়া সমিতির সম্পাদক জেলা শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) নিখিল রঞ্জন চক্রবর্তীর সভাপতিত্বে সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মেহেরপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মো. জয়নাল আবেদীন। বিশেষ অতিথি ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার আব্দুল আজিজ।

Leave a comment

Your email address will not be published.