২০২৫ সালে মঙ্গলে বসত!

স্টাফ রিপোর্টার: একবার এই মায়াভরা পৃথিবী ছেড়ে গেলে আর ফিরতে পারবেন না জেনেও দু লাখের বেশি মানুষ মঙ্গলগ্রহে পাড়ি জমাতে চান। মঙ্গলগ্রহে মানুষ পাঠানোর এ আয়োজন করেছে নেদারল্যান্ডসের একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান মার্স ওয়ান। দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলেছে মঙ্গলযাত্রার এ কাজ। সম্প্রতি মার্স ওয়ান কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, মঙ্গলে বসতি স্থাপনের জন্য লকহিড মার্টিন, সারে স্যাটেলাইট টেকনোলজিসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান কাজ শুরু করেছে। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ২০১৮ সালে মঙ্গলের উদ্দেশে মনুষ্যবিহীন রোবোটিক যান পাঠানোর প্রক্রিয়া শুরু হবে। ২০২৫ সাল নাগাদ আবেদনকারীদের মধ্য থেকে চারজন সেখানে গিয়ে স্থায়ীভাবে বসবাস শুরু করবেন। ১০ ডিসেম্বর মার্স ওয়ান প্রকল্পের প্রধান নির্বাহী ব্যাস ল্যানসড্রপ জানিয়েছেন, এ বছরের এপ্রিল মাসে মঙ্গলে মানুষ পাঠানোর পরিকল্পনা প্রকাশের পর থেকে অসংখ্য মানুষের সাড়া পাওয়া গেছে। দু লাখের বেশি মানুষ মঙ্গলে স্থায়ীভাবে বসবাস করার ইচ্ছার কথা প্রকাশ করেছেন। মঙ্গলগ্রহে যাওয়ার জন্য আবেদন প্রক্রিয়া ইতোমধ্যে শেষ হয়ে গেছে। দু লাখ আবেদনকারীর মধ্যে থেকে উপযুক্ত নভোচারী বেছে নিতে শিগগিরই দ্বিতীয় পর্যায় শুরু করবে মার্স ওয়ান।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *