১০ অক্টোবর দেবীর বোধন : ১৪ অক্টোবর বিসর্জন : শারদীয় দুর্গোৎসব : ঘরে বাইরে সাজ সাজ রব

উজ্জ্বল মাসুদ: শুভ মহালয়ায় শুক্রবার শুরু হয়েছে দেবীপক্ষ। দেবী দুর্গাকে মর্ত্যে আবাহণের মাধ্যমে দেবীর শুভাগমনের আনুষ্ঠানিক প্রতীক্ষাও শুরু হয়েছে এদিনই। আগামী ১০ অক্টোবর শারদীয় উৎসবের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়ে চলবে ১৪ অক্টোবর পর্যন্ত।

চুয়াডাঙ্গা মেহেরপুর ও ঝিনাইদহসহ সারাদেশের বিভিন্ন মন্দিরে-মণ্ডপে দেবী দুর্গার আগমনী বার্তায় হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের ঘরে ঘরে উৎসবের আমেজ বইতে শুরু করেছে। দুর্গাপূজার বাজনা বেজে উঠেছে সারাদেশে। আগামী ১০ অক্টোবর বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হচ্ছে বাঙালির এ শারদোৎসব। ৫ দিনের উৎসব চলবে ১৪ অক্টোবর পর্যন্ত। আর ঢাকা মহানগরসহ সারাদেশের প্রায় সাড়ে ২৪ হাজার পুজোমণ্ডপে এখন চলছে প্রস্তুতিমূলক নানা আয়োজন।

মহালয়ার ঠিক ছয় দিনের মাথায় ১০ অক্টোবর বৃহস্পতিবার ষষ্ঠীতে মা দুর্গার বোধন, আমন্ত্রণ ও অধিবাসের মধ্যদিয়ে শুরু হবে দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা। প্রথম দিন পূজামণ্ডপে সকাল ১০টা ৫৯ মিনিটে ষষ্ঠ্যাদি কল্পালম্ভ, সায়ংকালে বেদীর বোধন (পঞ্জিকার লগ্ন অনুযায়ী প্রতিমা স্থাপনে বেদী প্রতিষ্ঠা), আমন্ত্রণ ও অধিবাস, সন্ধ্যায় ভক্তিমূলক সঙ্গীত পরিবেশন করা হবে। ১১ অক্টোবর সপ্তমী, ১২ অক্টোবর মহাষ্টমী ও কুমারী পূজা, ১৩ অক্টোবর মহানবমী এবং ১৪ অক্টোবর বিজয়া দশমীতে বিজয়া শোভাযাত্রা ও প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে শেষ হবে দুর্গোৎসব।

চুয়াডাঙ্গা জেলায় এবার মোট ৯৭টি মণ্ডপে পূজোর আয়োজন করা হচ্ছে। এর মধ্যে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলায় ২৯টি, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ৩০টি, দামুড়হুদা উপজেলায় ২০টি ও জীবননগর উপজেলায় ১৮টি স্থানে মণ্ডপের অয়োজন করা হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *