সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে যাচ্ছেন খালেদা

মাথাভাঙ্গা অনলাইন : নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে চলমান রাজনৈতিক সংকট নিরসনে শেষ চেষ্টা হিসেবে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন বিএনপি চেয়ারপারসন ও বিরোধী দলীয় নেতা বেগম খালেদা জিয়া। সাক্ষাৎকালে চলমান সংকট নিরসনে রাষ্ট্রপতি অ্যাডভোকেট আবদুল হামিদকে আলোচনার উদ্যোগ নেয়ার অনুরোধ জানাবেন তিনি।

তবে রাষ্ট্রপতি কোনো যথার্থ উদ্যোগ না নিতে পারলে আন্দোলনের মাধ্যমে দাবি আদায়ের চেষ্টা করা হবে।দলটির শীর্ষ নেতারা এমনটাই জানালেন। আর সেক্ষেত্রে আগামী সপ্তাহ থেকে নতুন করে লাগাতার হরতালের মতো ‘কঠোর’ কর্মসূচি শুরু করবে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ১৮ দল।

সোমবার রাতে রাষ্ট্রপতি সঙ্গে সাক্ষাতের সময় দেয়ার পর গুলশানের রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্যসহ সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেন বিরোধীদলীয় নেতা খালেদা জিয়া। বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, সর্বশেষ রাজনৈতিক বিষয় নিয়ে আলোচনার পাশাপাশি রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ ও পরবর্তী কর্মসূচি নিয়েও বৈঠকে আলোচনা হয়। বৈঠকে খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে বিএনপি ও ১৮ দলের ২০ সদস্যদের একটি প্রতিনিধি দলের বঙ্গভবনে যাওয়ার সিদ্ধান্ত হয়।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাতে খালেদা জিয়া আগামী নির্বাচনকালীন নির্দলীয় সরকার নিয়ে ১৮ দলের অবস্থান তুলে ধরবেন এবং এ দাবি আদায়ে এখন পর্যন্ত সরকারকে বিভিন্ন সময়ে যে সব ছাড় দেয়া হয়েছে তাও তুলে ধরবেন বিএনপি প্রধান। একই সঙ্গে নির্বাচনকালীন সরকারের প্রধান থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিকল্পও চাইতে পারেন তিনি।

বিএনপির একজন শীর্ষ নেতা  জানান, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাতে নির্বাচনকালীন সরকার নিয়ে ১৮ দলের অবস্থান তুলে ধরা হবে। পাশাপাশি চলমান রাজনৈতিক সংকট নিরসণে রাষ্ট্রে তাকে আলোচনার উদ্যোগ নেয়ার অনুরোধ জানানো হবে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দলের একজন স্থায়ী কমিটির সদস্য  বলেন, “রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাতের পর চেয়ারপারসন শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। পরে পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে নতুন কর্মসূচি ঠিক করা হবে । সেক্ষেত্রে আগামী সপ্তাহে কর্মসূচি দেয়া হতে পারে।”

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *