সন্তান হত্যাকারী পাষণ্ড পিতা কালুর স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি রেকর্ড

স্টাফ রিপোর্টার: সাড়ে ৪ বছরের নিষ্পাপ সন্তানকে চৌকির সাথে আছড়ে থেতলে হত্যাকরা পাষণ্ড পিতা কালু ওরফে বিপ্লব স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছে। গতকাল তার স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় রেকর্ড করেছেন জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট।

স্বীকারোক্তিতে কালু ওরফে বিপ্লব বলেছে, রাগের মাথায় ছেলেকে মেরেছি।  মরে গেছে। তার জবানবন্দী রেকর্ডের পর জেল হাজতে প্রেরণের আদেশ দেন আদালত।

কালু চুয়াডাঙ্গা আলমডাঙ্গার বুড়োপাড়ার মৃত হানেফের ছেলে। সে তার মামা বাড়ি পারলক্ষ্মীপুরে স্ত্রী খাদিজাসহ শিশু দু সন্তান নিয়ে বসবাস করে আসছিলো। স্ত্রীর কাছে নেশার জন্য গাঁজা কেনার টাকা চেয়ে না পেয়ে স্ত্রীকে মারধর করতে থাকে। মায়ের কান্নায় ঘুম থেকে জেগে উঠে বড় ছেলে নয়ন ওরফে মোস্তাকিন। পিতার কাছে পানি চায়। পানি দেয়ার বদলে ছেলেকে আঁছাড় মারে। চৌকির সাথে মাথা খোসে। ঘটনা ঘটে গত শনিবার রাতে। রাতে মারা গেলেও রোববার সকালে টের পায়। পারক্ষ্মীপুর বাজার থেকে কালুকে জনগণ আটক করে। পরে তাকে পুলিশে দেয়া হয়। গতকাল কালুকে আদালতে নেয়া হলে সে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দেয়।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *