শৈলকুপায় গ্রামীণ ব্যাংকের অফিসে তালা

 

ঝিনাইদহ অফিস: ঝিনাইদহের শৈলকুপায় গ্রামীণ ব্যাংকের এরিয়া অফিসে তালা লাগিয়ে দিয়েছে এক কর্মচারী। সেলিম আহমেদ নামে ওই কর্মচারী স্থানীয় কয়েকজনকে সাথে নিয়ে গতকাল সোমবার সকালে উপজেলার শহরের কবিরপুর মোড়ে ব্যাংকের কার্যালয়ে তালা লাগিয়ে দেয়। সে ব্যাংকের শৈলকুপা উপজেলার উমেদপুর শাখার দ্বিতীয় স্বাক্ষরকারী পদে কর্মরত।

ব্যাংকের কর্মচারীরা জানান, গত এপ্রিল মাসে গ্রামীণ ব্যাংক কর্মচারী সমিতির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ৩ বছর মেয়াদী এ নির্বাচনের ব্যাপক কারচুপি ও অর্থবাণিজ্যের অভিযোগ ওঠে। নির্ধারিত সময় পেরিয়ে গেলেও বিধিবহির্ভূতভাবে মনোনয়নপত্র জমা নেয়া হয়। এমনকি নির্বাচনের পর প্রার্থীদের ব্যালটবাক্স দেখানো হয়নি। নির্বাচনে এরিয়া প্রতিনিধি পদে কারচুপির অভিযোগ এনে আবুল কাশেম নামে এক প্রার্থী আদালতে মামলা করেন। এরপর ওই পদে কেউ দায়িত্ব নিতে পারবে না বলে আদালত নির্দেশ দেন। সারাদেশে গ্রামীণ ব্যাংক কর্মচারী সমিতির এরিয়া প্রতিনিধি পদে দায়িত্বভার গ্রহণের দিন গতকাল জোরপূর্বক দায়িত্ব বুঝে নেয়ার চেষ্টা করে সেলিম আহমেদ নামে এক প্রার্থী। কিন্তু ব্যাংক কর্তৃপক্ষ তাকে দায়িত্বভার বুঝে না দেয়ায় তিনি কর্মকর্তাদের প্রতি ক্ষিপ্ত হন। একপর্যায়ে সকাল ১০টার দিকে সেলিম আহমেদ স্থানীয় সন্ত্রাসীদের সাথে নিয়ে ব্যাংকে তালা লাগিয়ে দেয়। এ সময় প্রোগ্রাম অফিসার অশোক কুমার কুমার অবরুদ্ধ হয়ে পড়েন। ৩ ঘণ্টা পরে কর্মকর্তারা গিয়ে তালা খুলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ বিষয়ে গ্রামীণ ব্যাংকের শৈলকুপার এরিয়া ম্যানেজার আক্তারুল ইসলাম বলেন, ঘটনাটি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *