শশী মাকে হত্যা করেননি

মাথাভাঙ্গা মনিটর: মা কোনোভাবেই আত্মহত্যা করতে পারেন না। এমনকি শশী থারুরও তার মাকে হত্যা করেননি। ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রী শশী থারুরের স্ত্রী সুনন্দা পুশকারের ছেলে শিব মেনন এমনটাই দাবি করেছেন। গতকাল বুধবার এক খবরে বলা হয়, গতকাল রাতে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে সুনন্দা পুশকারের ছেলে শিব মেনন তার মায়ের মৃত্যু প্রসঙ্গে এ দাবি করেন। তার মায়ের মৃত্যু নিয়ে গণমাধ্যমে যেসব সংবাদ প্রকাশিত হচ্ছে, তা সত্য নয় বলেও মন্তব্য করেন তিনি। বিবৃতিতে শিব মেনন বলেন, ‘যারা আমার মাকে চেনেন ও জানেন, তারাই শুধু জানেন যে মা মানসিকভাবে কতোটা শক্তিশালী। তিনি আত্মহত্যা করতে পারেন না। আমি এটাও বিশ্বাস করি না, শশী মাকে মারধর করে হত্যা করতে পারেন। তারা পরস্পরকে খুবই ভালোবাসতেন।’ তবে মেনন বলেছেন, তার মা কোনো কারণে চাপে থাকতে পারেন। তার মায়ের মৃত্যু নিয়ে অসত্য সংবাদ প্রকাশিত হচ্ছে। ঘুমের মাঝেই তার মৃত্যু হয়েছে। তার মৃত্যু শান্তিপূর্ণ। ‘অনেক হয়েছে। এবার দয়া করে মায়ের আত্মাকে একটু শান্তিতে থাকতে দিন।’গত শুক্রবার রাজধানীর চানক্যপুরীর লীলা হোটেল থেকে ৫২ বছর বয়সী সুনন্দার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গত শনিবার ময়নাতদন্ত শেষে তার শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হয়। সুনন্দার অস্বাভাবিক মৃত্যুর কারণ হিসেবে মাত্রাতিরিক্ত ওষুধ সেবনের ফলে বিষক্রিয়াকেই দায়ী করা হয়েছে। সুনন্দার ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনে এমনটাই জানিয়েছেন চিকিত্সকেরা। এর ভিত্তিতেই এখন সুনন্দার মৃত্যু তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন সাবডিভিশনাল ম্যাজিস্ট্রেট।

Leave a comment

Your email address will not be published.