যশোর প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে সংঘর্ষ : ৪র্থ বর্ষের ছাত্র রিয়াদ নিহত

 

যশোরবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যবিপ্রবি) ছাত্রলীগের হাতে নাইমুলইসলাম রিয়াদ নামে এক ছাত্র খুন হয়েছেন। সোমবার দুপুরে ছাত্রলীগের কর্মীরাতার ঘাড় ও বুকে ছুরিকাঘাত করে খুন করে। নিহত রিয়াদ পরিবেশ বিজ্ঞান অনুষদেরচতুর্থ বর্ষের ছাত্র।এ সময় রিয়াদকে বাঁচাতে এগিয়ে গেলে তার সহপাঠী জুয়েল ছাত্রলীগের হাতে মারাত্মক আহত হয়েছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়সূত্রে জানা যায়, গত রোববার বিকেলে পরিবেশ বিজ্ঞান অনুষদের প্রথম বর্ষেরছাত্র তানভীর তারই ডিপার্টমেন্টের শেষ বর্ষের ছাত্র বাদলকে মারধর করেন।আজ সোমবারদুপুরে তানভীরের কাছে বিষয়টি জানতে চান রিয়াদ। এ সময় তারা উভয়েই উত্তেজিতহয়ে পড়েন। এরপর ছাত্রলীগকর্মী তানভীর তার মামা এবং ছাত্রলীগ যবিপ্রবিরসাধারণ সম্পাদক শামিম হাসানকে মোবাইলে বিষয়টি জানান। এর কিছু সময় পরই শহরথেকে তিনটি মোটরসাইকেলে এসে ছয় যুবক ক্যাম্পাসের মূল ফটকের সামনে রিয়াদকেএলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করে। ঠেকাতে এলে সন্ত্রাসীরা পিস্তলের বাট দিয়ে তারসহপাঠী জুয়েলের মাথায় আঘাত করে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।গুরুতর আহত রিয়াদকে হাসপাতালে আনার পথে তার মৃত্যু হয় বলে পুলিশ জানিয়েছে।যবিপ্রবিরউপাচার্য প্রফেসর আব্দুস সাত্তার বলেন, আমি বিষয়টি শুনেছি। ছাত্রলীগকর্মীদের হাতে দু’ছাত্র জখম হয়েছে। তবে, অফিসিয়ালি এই প্রতিষ্ঠানে কোনছাত্র সংগঠন সক্রিয় নেই। ছাত্র যদি মারা যায়, তবে শিক্ষকদের সাথে বসেপরবর্তী করণীয় নির্ধারণ করা হবে।যশোর কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্তকর্মকর্তা (ওসি) সহিদুল ইসলাম ঘটনা শুনেছেন এবং রিয়াদকে হাসপাতালে আনার পথেতার মৃত্যু হয়েছে বলে জানান।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *