মেহেরপুর পল্লি বিদ্যুত সমিতির আলমডাঙ্গা এলাকার পরিচালক পদে নির্বাচন সম্পন্ন

নির্বাচিত হলেন বিশিষ্ট হাটব্যবসায়ী খলিলুর রহান
আলমডাঙ্গা ব্যুরো: টান টান উত্তেজনা আর উৎসবমুখর পরিবেশে মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুত সমিতির ৪ নং আলমডাঙ্গা এলাকার পরিচালক পদের নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। এ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী ৩ প্রার্থীকে হারিয়ে জয়লাভ করেছেন বিশিষ্ট হাটব্যবসায়ী মো. খলিলুর রহমান। তিনি তার ছাতা প্রতীকে ১ হাজার ২৪৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী গোলাম রসুল গোলাপে বৈদ্যুতিক পাখায় পাওয়া ভোটের চেয়ে ২৭৮ ভোট বেশি পেয়ে খলিলুর রহমান বিজয়ী হন। গোলাম রসুল গোলাপ তার বৈদ্যুতিক পাখা মার্কায় পেয়েছেন ৯৬৭ ভোট। বিজয়ী প্রার্থী খলিলুর রহমান তার দায়িত্ব সুষ্ঠুভাবে পালনের জন্য উপজেলার সকলের সহযোগিতা কামনা করেছেন। সেই সাথে তিনি দৈনিক মাথাভাঙ্গার মাধ্যমে সমস্ত ভোটারকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, এ বিজয় আমার একার নয়, এ বিজয় আমার এলাকার সমস্ত মানুষের।
মেহেরপুর পল্লী বিদ্যুত সমিতির আলমডাঙ্গার ৪ নম্বর এলাকার পরিচালক পদের নির্বাচন গতকাল সোমবার উপজেলা পরিষদ পুরাতন হলরুমে অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ১০টায় ভোট গ্রহণ শুরু হয়। একটি পরিচালক পদের বিপরীতে উপজেলার ৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। প্রার্থীদের পক্ষে স্বতঃস্ফূর্তভাবে ভোটারেরা ভোট দিতে আসেন। চোখে পড়ে ভোটারদের লম্বা লাইন। দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে ভোট দিতে দেখা যায় বৃদ্ধদেরকেও। আলমডাঙ্গা উপজেলা শহর যেন উৎসবের শহরে পরিণত হয়। অবরোধে বাস না চললেও আলমসাধু, নসিমন-করিমনযোগে উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে পল্লী বিদ্যুতের গ্রাহকরা ভোট দিতে আসেন। উপজেলার জেহালা, নাগদাহ, আইলহাস, খাসকররা, জামজামি, ডাউকি, বেলগাছি, কালিদাসপুর ইউনিয়ন ও আলমডাঙ্গা পৌর এলাকার ১১ হাজার ২৯৭ জন ভোটারের মধ্যে ৩ হাজার ১৪১ জন তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। এর মধ্যে ১২টি ভোট বাতিল করা হয়।
প্রতিদ্বন্দ্বী অন্য দু প্রার্থী ফজলুল হক বৈদ্যুতিক বাল্ব মার্কায় পেয়েছেন ৬৬০ ভোট। আর সর্ব নিম্ন ভোট পেয়েছেন হায়দার আলী মাছ প্রতীকে ২৫৭ ভোট। নির্বাচনে প্রধান নিরর্বাচন কমিশনারের দায়িত্ব পালন করেন পল্লী বিদ্যুত বোর্ডের কারিগরি শাখার উপ-পরিচালক মাহবুবুর রহমান। ফলাফল ঘোষণার পর বিজয়ী প্রার্থী খলিলুর রহমানের পক্ষে আলমডাঙ্গা শহরে তাৎক্ষণিকভাবে বিজয় মিছিল বের হয়।
খলিলুর রহমানের পরিচয়: আলমডাঙ্গা উপজেলার জেহালা ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামের আকবর আলী ও মৃত শাহার বানুর বড় ছেলে মো. খলিলুর রহমান পেশায় একজন চুয়াডাঙ্গার বিশিষ্ট হাটব্যবসায়ী এবং স্থানীয় ৭ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক। সংসার জীবনে তিনি ১ ছেলে ও ১ মেয়ের জনক। তার এ বিজয়ে তাকে অভিনন্দন ও শুভ কামনা জানিয়েছেন সৃজনী মডেল মাধ্যমিক বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক আহাদ আলী মোল্লাসহ বিদ্যালয়ের শিক্ষক-কর্মচারীবৃন্দ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *