মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক কাজী আরেফ আহমেদসহ পাঁচ জাসদ নেতা হত্যার ১৯তম বার্ষিকী পালন

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি: বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক জাসদের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি কাজী আরেফ আহমেদসহ পাঁচ জাসদ নেতা হত্যার ১৯তম বার্ষিকী পালিত হয়েছে। কাজী আরেফ পরিষদ ও শহীদ ইয়াকুব আলী স্মৃতি সংসদসহ বিভিন্ন সংগঠন বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করে। এ উপলক্ষে শুক্রবার সকাল ৯টায় দৌলতপুর পিএম কলেজ চত্বরে শহীদ ইয়াকুব আলীর কবরে জাসদ নেতৃবৃন্দ, শহীদ ইয়াকুব আলী স্মৃতি সংসদ ও বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন সংগঠন পুষ্পমাল্য অর্পণ করে। এরপর ফাতেহা পাঠ ও সংক্ষিপ্ত আলোচনাসভায় বক্তব্য রাখেন কুষ্টিয়া জেলা জাসদের একাংশের সভাপতি অধ্যক্ষ রেজাউক হক, দৌলতপুর জাসদের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল কবীর স্বপন, শহীদ ইয়াকুব আলীর ছেলে ইউসুফ আলী রুশোসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ ও স্থানীয় সুধীজন। অপরদিকে বিকেলে কুষ্টিয়া শিল্পকলা একাডেমিতে কাজী আরেফ আহমেদ স্মৃতি সংসদের আয়োজনে এক স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
উল্লেখ্য, ১৯৯৯ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি বিকেলে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের কালিদাসপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে সন্ত্রাসবিরোধী এক জনসভায় মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক জাসদ সভাপতি কাজী আরেফ আহমেদ, জেলা জাসদের সভাপতি লোকমান হোসেন, সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. ইয়াকুব আলী, স্থানীয় জাসদ নেতা ইসরাইল হোসেন ও শমসের ম-ল সন্ত্রাসীদের এলোপাতাড়ি গুলিতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন। হত্যাকা-ের ঘটনায় সে সময় দেশজুড়ে ব্যাপক তোলপাড় ও আলোড়ন সৃষ্টি হয়। আসামির তালিকায় উঠে আসে চুয়াডাঙ্গা আলমডাঙ্গা উপজেলার কয়রাডাঙ্গা গ্রামের নুরুজ্জামান লাল্টুর নাম।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *