মহেশপুরের এক কলেজছাত্রীকে আমবাগানে নির্যাতন : অভিযুক্তকে থানায় ডেকে সালিস করে জুতোপেটা!

মহেশপুর প্রতিনিধি: মহেশপুরে এক কলেজছাত্রীকে নির্যাতন করায় সালিসের মাধ্যমে থানার ভেতরে অভিযুক্ত মোজাম্মেলকে জুতোপেটা করা হয়েছে। গতকাল রোববার সকালে মহেশপুর থানায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও এলাকাবাসীসূত্রে জানা গেছে, উপজেলার জাগুসা গ্রামের এক কলেজছাত্রীকে শারীরিক নির্যাতন করায় রোববার সকালে মহেশপুর থানায় ওসি শাহিদুল ইসলাম শাহিনের নেতৃত্বে সালিস বৈঠক হয়। সালিসে অভিযুক্তকে জনসম্মুখে জুতোপেটা করা হয়। কলেজছাত্রীর এক ভাই জানান, তার চাচাতো বোন যশোর একটি কলেজে অনার্স ২য় বর্ষের ছাত্রী। গত ১২ মে বিকেলে সে বাড়ির পাশে একটি আমবাগানে গেলে একই গ্রামের মৃত মোবারেক হোসেনের ছেলে মোজাম্মেল হোসেন তাকে বেদমভাবে বাঁশের লাঠি দিয়ে মারপিট করে। এ ঘটনায় মহেশপুর থানায় নির্যাতিত কলেজছাত্রীর পিতা থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করেন। গতকাল রোববার সকালে ওসি শাহিদুল ইসলাম শাহিন নোটিশ দিয়ে মোজাম্মেলকে থানায় ডাকেন। এ ব্যাপারে সালিসে ৬ সদস্যের বিচারক প্যানেল তৈরি করা হয়। তারা একত্রে সিদ্ধান্ত নেন যে, অভিযুক্ত মোজাম্মেলকে একটি মুচলেকা লিখে দেবে, কলেজছাত্রীর পিতার কাছে ক্ষমা চাইবে এবং তাকে প্রকাশ্যে জুতোপেটা করতে হবে। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী মোজাম্মেলকে থানার ভেতরেই সালিস প্রতিনিধি আলমগীর জুতোপেটা করেন। এ ব্যাপারে ওসি শাহিদুল ইসলাম শাহিনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *