ভিক্ষাকরে জীর্ণ কুঠিরে ফেরার সময় করিমন দুর্ঘটনায় স্বামী-স্ত্রীসহ আহত তিন : অর্থাভাবে দু নারীসহ ৪ জনের চিকিৎসা ব্যাহত

স্টাফ রিপোর্টার: ভিক্ষা করে জীর্ণ কুঠিরে ফেরার সময় শ্যালোইঞ্জিনচালিত করিমন দুর্ঘটনায় স্বামী স্ত্রীসহ তিন ভিক্ষুক গুরুতর জখম হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার চুয়াডাঙ্গা-ঝিনাইদহ সড়কের সাধুহাটি বুড়াপাড়া নামক স্থানে পেছন থেকে সাথী পরিবহন নামের একটি বাসের ধাক্কায় আছড়ে পড়ে তিন ভিক্ষুক গুরুত্বর জখম হন।

দুর্ঘটনায় জখম তিন জনকেই উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এরা হলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা সদরের জাফরপুর ব্রীকফিল্ড বস্তির উম্বাত আলী (৭০) ও তার স্ত্রী মাহেরণ নেছা (৬৫) এবং একই স্থানের বাসিন্দা বেনু শেখের স্ত্রী জোসনা খাতুন (৫০)। জোসনা খাতুনের শরীরে আঘাত হলেও উম্বাত আলীর একটি পা ভেঙেছে ও তার স্ত্রী মাহেরণ নেছার দুটি পা ভেঙেছে। যে দম্পতি ভিক্ষাবিত্তি করে দু বেলা দু মুঠো খাবার জোগান তারা স্বামী-স্ত্রী। দুজনই দুর্ঘটনায় পা ভেঙে হাসপাতালে গুণছেন অনিশ্চয়তার প্রহর। অর্থাভাবে এদের চিকিৎসা পড়েছে চরম অনিশ্চয়তার মধ্যে। এ ছাড়া দামুড়হুদা জয়রামপুর ডাক্তারপাড়ার ফয়জুল শেখের ছেলে ভ্যানচালক মোফাজ্জল হোসেন (৪০) পাউয়ার টিলারের ধাক্কায় আছড়ে পড়ে গুরুত্বর জখম হয়েছেন। অর্থাভাবে তারও চিকিৎসা ব্যাহত হচ্ছে। তাকেও চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রাখা হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *