বিদেশের টুকরো খবর

অস্ট্রেলিয়ায় বন্যায় তিন জনের মৃত্যু

মাথাভাঙ্গা মনিটর: অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূলে ব্যাপক ঝড়বৃষ্টিতে সৃষ্ট বন্যায় নদীর পানি উপচে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। সেখানে এখনো বেশ কয়েকজন নিখোঁজ রয়েছেন। দেশটির নিউ সাউথ ওয়েলস, ভিক্টোরিয়া ও তাসমানিয়ায় ঝড়ের তাণ্ডব বেশি হয়েছে। প্রবল ঝড়ে সাগরে সৃষ্ট ঢেউয়ের আঘাতে সিডনির কোলারয় সৈকতের বিলাসবহুল বাড়িগুলো থেকে লোকজনকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এসব ঘরবাড়ি যে কোনো মুহূর্তে ধসে পড়তে পারে। তাসমানিয়ার সাতটি নদীর পানি উপচে বড় ধরনের বন্যা হতে পারে বলে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। সেখানে দুইজন বয়স্ক ব্যক্তি ডুবে মারা গেছেন বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

আখলাককে হত্যার পর এবার তার পরিবারেরই শাস্তি দাবি

মাথাভাঙ্গা মনিটর: গরুর মাংস খাওয়া ও সংরক্ষণের অভিযোগে ভারতের উত্তর প্রদেশের দাদরিতে আখলাক হোসেন নামের একজনকে পিটিয়ে হত্যার পর এবার তার পরিবারের সদস্যদের শাস্তি দাবি করেছেন স্থানীয় বিজেপি ও শিবসেনা নেতারা। সোমবার পুলিশের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে আখলাকের গ্রামে পঞ্চায়েত বৈঠক করেছে এরা। ভারতের রাজধানী দিল্লি থেকে মাত্র ৫০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত দাদরি। সোমবার সকালে পুলিশ জানিয়েছিল, সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা সৃষ্টি হতে পারে আশঙ্কায় সেখানে পঞ্চায়েতের বৈঠক করতে নিষেধ করা হয়। কিন্তু পুলিশের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করেই স্থানীয়দের নিয়ে বৈঠক করে বিজেপি ও শিবসেনা নেতারা।

দিল্লিতে ড্যানিস নারীকে ধর্ষণের ঘটনায় ৫ জনকে দোষী সাব্যস্ত

মাথাভাঙ্গা মনিটর: একজন ডেনিস মহিলাকে গণধর্ষণের ঘটনায় ৫ জনকে দোষী সাব্যস্ত করে গতকাল সোমবার রায় দিয়েছে ভারতের রাজধানী দিল্লির একটি আদালত। ২০১৪ সালে এ গণধর্ষণের ঘটনা ঘটে। ওই বছর জানুয়ারিতে ৫১ বছর বয়সী এক ডেনিস নারীকে অপহরণের পর ছুরির মুখে ধর্ষণ করা হয়। এ ঘটনায় সে সময় ৯ জনকে আটক করা হয়, যাদের মধ্যে তিনজন অপ্রাপ্ত বয়স্ক ছিলেন। তবে ফেব্রুয়ারি মাসে এদের মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়। অপ্রাপ্ত বয়স্কদের বিচার কিশোর আদালতে করা হচ্ছে। ২০১২ সালে দিল্লিতে বাসে এক মেডিকেল ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনার পর যৌন সহিংসতার ঘটনাগুলো পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে তদন্ত চলছে বলে জানা গেছে। এদিকে রায় প্রদানকালে অতিরিক্ত দায়রা জজ রমেশ কুমারের উদ্ধৃতি দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, ‘সকল ধরনের অপরাধের জন্য জড়িত অপরাধীদের দোষী সাব্যস্ত করা হল।’

কাজাখস্তানে বন্দুকধারী-পুলিশ লড়াইয়ে নিহত ১০

মাথাভাঙ্গা মনিটর: কাজাখস্তানের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে দুটি বন্দুকের দোকান ও সামরিক বাহিনীর একটি ইউনিটের উপর সন্দেহভাজন ইসলামি জঙ্গি-বিদ্রোহীদের হামলায় ৬ জন নিহত হয়েছেন। পুলিশের পাল্টা হামলায় হামলাকারীদের ৪ জনও নিহত হয়েছেন। আকতোবে শহরে হামলাকারীদের মধ্যে চারজন পুলিশের গুলিতে নিহত হলেও বাকিরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হন। শহরের অধিবাসীদের ঘরে অবস্থান করার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। নিরাপত্তা বাহিনী সন্দেহভাজন হামলাকারীদের ধরতে অভিযান অব্যাহত রেখেছে। দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আলমাস সাদুবায়েভ বলেন, হামলাকারীরা ‘মৌলবাদ, অ-প্রথাগত ধর্মীয় আন্দোলনের অনুসারী। এই শব্দবন্ধ সাধারণত ইসলামি জঙ্গি-বিদ্রোহীদের বোঝানোর ক্ষেত্রে ব্যবহৃত হয়। কাজাখস্তানে ইসলামি জঙ্গি হামলা বিরল।

 

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *