বন্ধ হয়নি চুয়াডাঙ্গা টুকু গুরুর জুয়ার আড্ডা

 

স্টাফ রিপোর্টার: বন্ধ হয়নি টুকু গুরুর জুয়ার আড্ডা স্থান পরিবর্তন করেছে। আর এ জুয়ার আসর দীর্ঘদিন ধরে শহরের বিভিন্ন এলাকায় বসালেও প্রশাসন রহস্যজনক কারণে রয়েছে নীরব। টুকু গুরুর জুয়ার আড্ডা নিয়মিত বসতো বুজরুগড়গড়ি বনানী পড়ার ঈদগার পেছনে। আর সেখান থেকে নিয়মিত উৎকোচ নেয়ার অভিযোগ ওঠে চুয়াডাঙ্গা সদর ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আবুল খায়েরের বিরুদ্ধে। এ নিয়ে দৈনিক মাথাভাঙ্গা পত্রিকায় ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। টুকু আজ এখানে, কাল ওখানে এভাবে তার জুয়া চালাতে থাকে।

সূত্রে জানা গেছে, বেশ কিছু দিন যাবত চুয়াডাঙ্গার পীরপুর মাঠে জুয়ার আসর বসাচ্ছে টুকু গুরু। আর জুয়া চলে প্রতিদিন সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত। রোদ-বৃষ্টির জন্য তাঁবু টানিয়ে সেখানেই বসানো হয় জুয়ার আসর। অন্ধকারে ব্যবস্থা করা হয় মোমবাতি ও চার্জার লাইটের। বিনিময়ে পায় খেলার প্রতিবোর্ড থেকে টাকা। চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুর ও ঝিনাইদহসহ বিভিন্ন এলাকা থেকে জুয়াড়িরা জুয়া খেলতে আসে। জুয়া খেলাকে কেন্দ্র করে সেখানে বসানো হয় চা, পান, বিড়ির দোকান। পাশেই থাকে খাবার হোটেল। খাবার হোটেলে খাবারের দাম আকাশ ছোঁয়া। চা, পান, বিড়ি ও খাবারের হোটেল থেকেও টাকা পায় টুকু। জুয়াড়িদের জন্য করা হয় মোটরসাইকেলের ব্যবস্থা। হেরে গেলে টুকুর লোক খেলোয়াড়কে সাথে নিয়ে মোটরসাইকেলযোগে টাকা নিয়ে আসার জন্য সহযোগিতা করে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক পুলিশ কনস্টেবল জানান, টুকু এতো কিছু করে সবাইকে টাকা দিয়ে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *