ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের জের : মেহেরপুর যাদবপুর মাঠে ১০ বিঘা জমির ফসল কেটে তছরুপ : ৪ লাখ টাকা ক্ষতি

মেহেরপুর অফিস: মেহেরপুরে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের জের ধরে রাতের আঁধারে কপি, মরিচ, কলা, কলাই ও ধানসহ বিভিন্ন ফসলের প্রায় দশ বিঘা জমির ফসল কেটে তছরুপ করেছে প্রতিপক্ষ। যার ক্ষতির পরিমাণ প্রায় ৪ লাখ টাকা। গত বুধবার রাতের কোনো এক সময়ে সবজিসহ বিভিন্ন ধরনের ফসল কেটে তছরুপ করে তারা। বৃহস্পতিবার সকালে মেহেরপুর সদর থানা পুলিশ ক্ষতিগ্রস্ত মাঠ পরিদর্শন করেছে।

ক্ষতিগ্রস্তরা জানিয়েছেন, গত ঈদের একদিন আগে মেহেরপুর সদর উপজেলার রাজাপুর গ্রামে স্বাগতিক রাজাপুর ও যাদবপুর গ্রামের মধ্যে ফুটবল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। ওই খেলাকে কেন্দ্র করে দু গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এর কয়েক দিন পরে আবারও ওই দু গ্রামের কয়েকজন যুবকের মধ্যে বিবাদ হয়। এরই জের ধরে ঘটনার রাতের আঁধারে রাজাপুর গ্রামের মানুষ যাদবপুর গ্রামবাসীর প্রায় দশ বিঘা জমির ফসল কেটে তছরুপ করে। ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক যাদবপুর গ্রামের আব্দুর রহিমের দেড় বিঘা জমির বাধা কপি, আব্দুল মান্নানের ১৫ কাঠা জমির কলাই, মহাম্মদ আলীর ১০ কাঠা জমির ঝাল, মনিরুল ও কুদ্দুসের ২ বিঘা কলা এবং ফয়েজউদ্দিনের ৫ কাঠা জমির কলমি শাক, ইয়ারুল ইসলামের এক বিঘা জমির ধান, শুকুর আলীর এক বিঘা জমির ভুট্টা ও ফুয়াজের দেড় বিঘা জমির ভুট্টাসহ বিভিন্ন চাষির সর্ব মোট ১০ বিঘা জমির ফসল কেটে তছরুপ করে। চাষিরা জানিয়েছেন, তাদের ক্ষতির পরিমাণ প্রায় ৪ লাখ টাকা। মেহেরপুর বুড়িপোতা ইউপি সদস্য যাদবপুর গ্রামে আলমগীর হোসেন লাল্টু জানান, এ বিষয়ে ক্ষতিগ্রস্ত চাষি আব্দুর রহিম বাদী হয়ে মেহেরপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করতে গেলে থানা পুলিশের ওসি রিয়াজুল ইসলাম মামলা না নিয়ে থানায় জিডি করার পরামর্শ দেন। শেষ সংবাদ পাওয়া পর্যন্ত ক্ষতিগ্রস্তরা থানায় জিডি করেননি।

মেহেরপুর সদর থানার এসআই কামাল মাঠ পরিদর্শন করে জানান, মামলা হলে দুষ্কৃতিকারীদের খুঁজে বের করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *