পাটের মূল্য বৃদ্ধিসহ তিন দফা দাবিতে গাংনীতে ওয়ার্কার্স পার্টির মানববন্ধন

 

গাংনী প্রতিনিধি: বাংলাদেশের প্রাণ কৃষি ও কৃষকের স্বার্থ রক্ষায় পাটের মুল্য মণ প্রতি ৪ হাজার ২শ টাকা নির্ধারণ এবং পাট ক্রয় কেন্দ্রগুলোতে দুর্নীতি বন্ধসহ তিন দফা দাবি আদায়ে এবার মাঠে নেমেছে ওয়ার্কার্স পার্টি। গতকাল রোববার দুপুরে গাংনী প্রেসক্লাবের সামনের সড়কে মানববন্ধন থেকে সরকারের কাছে দাবি পেশ করেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি মেহেরপুর জেলা শাখা। মানববন্ধন শেষে গাংনী উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর স্মারকলিপি পেশ করেন।

মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন জেলা ওয়ার্কার্স পার্টি সাধারণ সম্পাদক কমরেড আব্দুল মাবুদ। বক্তব্যে তিনি বলেন, সরকারিভাবে সময়মতো পাটের মূল্য নির্ধারণ না করা এবং পাট ক্রয় কেন্দ্রগুলো সুবিধাভোগী দালালদের দৌরাত্ম্য রয়েছে। এতে সাধারণ কৃষক সরকারি মূল্য থেকে বঞ্চিত। এছাড়াও সরকার যে মূল্য নির্ধারণ করে তা কৃষকের জন্য যথেষ্ট নয়। তাই পাটের নায্য মূল্য নিশ্চিত করা না গেলে কৃষকরা কিভাবে আবাদ করবেন?

সোনালী আঁশের সেই সুবর্ণ সময় ফিরিয়ে দেয়ার দাবি জানিয়ে তিনি আরো বলেন, দেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে পাট ও পাটশিল্প। কিন্তু নানা জটিলতায় এই খাত লোকসানে পরিণত হয়েছে। অপরদিকে চাষি পর্যায়ে উৎপাদন খরচসহ অন্যান্য খরচ বৃদ্ধি হলেও পাটের নায্যমূল্য পাচ্ছেন না কৃষকরা। তাই কৃষকের স্বার্থ রক্ষায় পাটের দিকে সরকারের আরও বেশি নজরদারি করার দাবি জানান তিনি।

মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন- ওয়ার্কার্স পার্টির জেলা কমিটির সদস্য কমরেড মজনুল হক মজনু, আব্দুর রশিদ, কমরেড রমজান আলী, কমরেড মজনুর রহমান আকাশ, আব্দুস সাত্তার ও হাসেম আলী। মানববন্ধনে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের পাটচাষিসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ অংশ নেয়।

Leave a comment

Your email address will not be published.