নিজ বাড়িতে আনাড়ি দায়ের সহযোগিতায় সন্তান প্রসব : নবজাতক রেখেই মারা গেলেন প্রসূতি

0
29

স্টাফ রিপোর্টার: নিজের বাড়িতেই গ্রামের হাতুড়ে দায়মার সহযোগিতায় সন্তান প্রসব করলেও শেষ পর্যন্ত মারা গেলেন প্রসূতি শরিফা খাতুন (৪১)। গতকাল রোববার সন্ধ্যায় তাকে যখন চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়া হয় জরুরী ওয়ার্ডে কর্তব্যরত চিকিৎক ডা. কানিজ নাঈমা রোগীকে মৃত বলে ঘোষণা করে বলেন, সন্তান প্রসবে সেবাদানে ত্রুটির কারণে মাত্রারিক্ত রক্তক্ষরণেই রোগী মারা যেতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।
জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা আলমডাঙ্গার বাড়াদি চারাতলাপাড়ার হাবিবুর রহমানের স্ত্রী ৩ সন্তানের জননী শরিফা খাতুন ছিলেন অন্তঃস্বত্ত্বা। গতকাল প্রসব বেদনা দেখা দেয়। নিজ বাড়িতেই প্রতিবেশী হাতুড়ে দায়মা ডাকা হয়। সন্তান প্রসব করেন। ফুল না হয়ে মাত্রারিক্ত রক্তাক্ষরণ শুরু হয়। নেয়া হয় আলমডাঙ্গার কনা নামের এক ক্লিনিকে। সেখান থেকে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। কর্তব্যরত চিকিৎসক বলেন, রোগী হাসপাতালে নেয়ার আগেই মারা গেছে। লাশ গতরাতেই নিজ গ্রাম বাড়াদির চারাতলায় নিয়ে দাফনের প্রক্রিয়া করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here