দেশের টুকিটাকি : অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে ব্যাংক কর্মকর্তা গ্রেফতার

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে ব্যাংক কর্মকর্তা গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার: সোনালী ব্যাংক, খুলনা জিএম অফিসের সিনিয়র প্রিন্সিপ্যাল অফিসার (এসপিও) মুজিবুর রহমানকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার দুপুরে নগরীর সোনাডাঙ্গা মডেল থানা পুলিশ তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করেছে। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) মহানগরীর নূরনগর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। দুদক খুলনা জেলা সমন্বিত কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শামীম ইকবাল এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, গ্রেফতারকৃত মজিবুর রহমান সোনালী ব্যাংকের বাগেরহাট শাখা ব্যবস্থাপক থাকাকালে তার নামে সাড়ে ৪ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলা হয়। ওই মামলায় তিনিসহ ৩ জন আসামি রয়েছেন। তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন লোকের নামে ভুয়া লোন দেখিয়ে উক্ত টাকা উত্তোলন ও আত্মসাতের অভিযোগ উঠলে দুদক তদন্ত শুরু করে।

জাবিতে গাঁজা চাষকারী ২ নেতা-কর্মী বহিষ্কার

স্টাফ রিপোর্টার: ‘জাবিতে ফুলের টবে গাঁজা চাষ করছেন ছাত্রলীগ নেতা’ এ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ হওয়ার পরেই ২ ছাত্রলীগ নেতাকর্মীকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করেছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ। গতকাল শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি মাহমুদুর রহমান জনি ও সাধারণ সম্পাদক রাজীব আহমেদ রাসেলের স্বাক্ষরিত এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। বহিষ্কৃতরা হলেন শাখা ছাত্র ছাত্রলীগের উপ-ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক মো. রইছ ও ছাত্রলীগ কর্মী মো. রাসেল। এদিকে পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার পরেই শহীদ রফিক জব্বার হলের ২০৯ ও ২১০ নাম্বার রুমের জানালার পাশের গাঁজা গাছগুলো সবার নজরে আসে। পরে সেখানে গাঁজা গাছগুলো সড়িয়ে ফুলের চারা লাগানো হয়েছে। কিন্তু এ ঘটনায় ছাত্রলীগ থেকে তাদের বহিষ্কার করলেও ২ ছাত্রলীগ কর্মী তাদের নির্দোষ দাবি করে বিবৃতি জানিয়েছেন।

জাবিতে দুই মাদকসেবী শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কার

স্টাফ রিপোর্টার: হেরোইন সেবনের সময় হাতেনাতে আটক হওয়া ২ শিক্ষার্থীকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) প্রশাসন। গতকাল শুক্রবার রেজিস্ট্রার আবু বকর সিদ্দিক এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে প্রশাসনের জরুরি এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। ওই ২ শিক্ষার্থী হলেন, বাংলা বিভাগের ৩৯তম ব্যাচের আল বেরুনী হলের মাইনুদ্দিন জনি এবং কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৪২তম ব্যাচের শহীদ রফিক-জব্বার হলের আবাসিক শিক্ষার্থী মো. সাজ্জাদ হোসেন সায়েম। এছাড়া জাবির ছাত্র কল্যাণ ও পরামর্শদান কেন্দ্রের পরিচালক অধ্যাপক রাশেদা আখতারকে প্রধান করে ওই ২ শিক্ষার্থীর হেরোইন সেবনের ঘটনা তদন্ত করতে ৪ সদস্যবিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে দু সপ্তাহের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

অতিথি হাতির নাম বঙ্গবাহাদুর

স্টাফ রিপোর্টার: বেশ কয়েকদিন ধরেই বাংলাদেশের মানুষের মুখে মুখে ভারতীয় হাতির কথা। বন্যার পানিতে ভেসে আসা এই হাতিটি প্রায় দেড় মাস দেশের পাঁচ জেলায় ঘুরে বেড়িয়েছে। তাকে বশে আনার জন্য চেষ্টার কমতি ছিলো না। পোষা হাতিকে দিয়েও কাবু করার চেষ্টা করা হয় তাকে। কিন্তু লাভ হয়নি। শেষ পর্যন্ত চেতনা নাশক দিয়ে অচেতন করা হয় বুনো হাতিটিকে। নিয়ে আসা হয় গাজীপুর। হার না মানা এ হাতিটির নাম রাখা হয়েছে ‘বঙ্গবাহাদুর’। গতকাল শুক্রবার বন অধিদফতরের উদ্ধার দলের নেতৃত্বে থাকা ড. তপন কুমার দে বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, বানের জলে ভেসে আসা বুনো হাতিটি দীর্ঘদিন ধরে দেশের কয়েকটি জেলা চষে বেড়িয়েছে। বেশ শক্তি থাকলেও কারো ক্ষতিও করেনি। দেশে এসে এভাবে ঘুরে বেড়ানো অতিথি পুরুষ হাতিটির নাম তাই আমরা রেখেছি বঙ্গবাহাদুর। সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করে এই নাম দেয়া হয়েছে বলে জানান অবসরোত্তর ছুটিতে থাকা সাবেক উপপ্রধান বন সংরক্ষক এবং প্রকৃতি সংরক্ষণ সমিতির নির্বাহী পরিচালক। অপরদিকে বিশ্ব হাতি দিবস উপলক্ষে  শুক্রবার সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জে চান্দাইকোনায় সকল শ্রেণির মানুষের অংশগ্রহণে মানববন্ধন ও পথসভা করা হয়েছে। বন্যপ্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণে স্বেচ্ছায় নিয়োজিত সংগঠন ‘স্বাধীন জীবনের’ আয়োজনে ভারত থেকে পথ ভুলে বাংলাদেশে আসা অসহায় বন্য হাতিটিকে সুস্থ করে তার স্বাধীন ঠিকানায় ফিরিয়ে দেয়ার দাবিতে এ মানববন্ধন করা হয়।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *