দেশের টুকরো খবর

হজ বর্জন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইরান

স্টাফ রিপোর্টার: গত বছর হজের সময় মিনায় পদদলিত হয়ে সাত শতাধিক (সৌদি সরকারের দাবী) হজযাত্রীর মৃত্যু ঘটনাকে কেন্দ্র করে এ বছর ইরান হজ বর্জন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যারা নিহত হয়েছেন তাদের অধিকাংশই ইরানি। এই নিহতদের সংখ্যা নিয়েও ইরান দাবি করে যে, নিহতদের সংখ্যা অন্তত দুই হাজার হবে, যা গোপন করছে সৌদি সরকার। এই সিদ্ধান্তের জন্য পুরোপুরি সৌদি আরবকে দায়ী করেছে শিয়া মুসলিমপ্রধান মধ্যপ্রাচ্যের এই দেশটি। ইরানের রাষ্ট্রীয় সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত দেশটির হজ ও তীর্থযাত্রা সংস্থার এক বিবৃতি উদ্ধৃত করে। ওই বিবৃতিতে জানানো হয়, সৌদি সরকারের চলমান নাশকতার কারণে আমরা ঘোষণা করছি যে, ইরানের হজযাত্রীরা এবছর হজে যাবে না। এর জন্য সৌদি আরব সরকার দায়ী। ইরানের সংস্কৃতিবিষয়কমন্ত্রী আলি জান্নাতি রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে বলেন, গত বছর সৌদি সরকারের হজ ব্যবস্থাপনা এবং ইরান ও অন্যান্য দেশের নিহত হজযাত্রীদের যন্ত্রণার কথা বিবেচনা করে আমরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমাদের কাছে হজযাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

উল্লেখ্য, বার্ষিক ধর্মীয় অনুষ্ঠান হজ পালনে প্রতিবছরই সারা বিশ্ব থেকে ২৫ লাখ মুসলিম সমবেত হন পবিত্র মক্কা নগরীতে। এদিকে গত বছর হজে পদদলনের ঘটনা আট মাস পার হয়ে গেলেও তদন্ত প্রতিবেদন এখনও প্রকাশ করেনি আরব সরকার।

 

ঈদ উপলক্ষে ভারতীয় হাইকমিশনের ভিসা ক্যাম্প

আসন্ন ঈদের ছুটি উপলক্ষ্যে বাংলাদেশী নাগরিকদের জন্য আগামী ৪-১৬ জুন ২০১৬ এক ঈদ ভিসা ক্যাম্পের আয়োজন করেছে ভারতীয় হাই কমিশন । ভিসা আবেদনকারীরা অগ্রিম সাক্ষাতের তারিখ/ই-টোকেন ছাড়াই তাদের টুরিস্ট ভিসার আবেদন সরাসরি এ ঈদ ভিসা ক্যাম্পে জমা দিতে পারবেন।

 

এই প্রথমবারের মত আসন্ন ঈদের ছুটিতে ভারত ভ্রমণেচ্ছু বাংলাদেশী নাগরিকদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থায় এ ক্যাম্পের আয়োজন করা হচ্ছে। যে-সব বাংলাদেশী নাগরিকের সাক্ষাতের তারিখ/ই-টোকেন নেই শুধুমাত্র তাদের ট্যুরিস্ট ভিসা আবেদনপত্র গ্রহণের জন্য এই ঈদ ক্যাম্পের আয়োজন করা হচ্ছে। য মেডিক্যাল, বিজনেস, ও অন্যান্য ভিসা বিভাগের আবেদনপত্র সংশ্লিষ্ট আইভিএসি কেন্দ্রসমূহে গৃহীত হবে।

 

৩১ মে’র পর সিম নিবন্ধনের সময় বাড়ছে না

স্টাফ রিপোর্টার: ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম জানিয়েছেন, আগামী ৩১ মে’র (মঙ্গলবার) পরে অনিবন্ধিত সিম পুনঃনিবন্ধনের জন্য সময় আর বাড়ছে না। রোববার সকালে রাজধানীর সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ তথ্য জানান। তারানা হালিম বলেন, ৩১ মে এর মধ্যে যারা সিম নিবন্ধন করতে পারবেন না। তাদের সিম ডিঅ্যাকটিভ হয়ে গেলেও সেই সিম নতুন করে কেনার জন্য দুই মাস সময় পাবেন। তবে প্রবাসী বাংলাদেশির জন্য এ সময় হবে ১৮ মাস। তিনি জানান, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে গ্রাহকরা যদি তাদের সিম নম্বর কিনে না নেন। তবে মোবাইল কোম্পানিগুলো অনিবন্ধিত সিমগুলো বিক্রি করে দিতে পারবে। এখন পর্যন্ত ১০ কোটি ৯ লাখ সিম নিবন্ধিত হয়েছে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।

 

জয়-সাফাদি নাটকের নাট্যকার তারেক রহমান : হানিফ

স্টাফ রিপোর্টার: আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ অভিযোগ করেন, সজিব ওয়াজেদ জয়ের সাথে মেন্দি এন সাফাদির বৈঠক নাটকের নাট্যকার বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার ছেলে তারেক রহমান। রবিবার বিকেলে ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলীয় সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন। হানিফ বলেন, দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করতে বিএনপি উঠে-পড়ে লেগেছে। তারা সজিব ওয়াজেদ জয়ের সাথে মেন্দি এন সাফাদির বৈঠকের নাটক সাজিয়েছে। আর নাটকের মূল নাট্যকার বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়ার ছেলে তারেক রহমান।

 

জয়ের ক্ষেত্রে নাটক, আর বিএনপির ক্ষেত্রে রাষ্ট্রদ্রোহিতা

স্টাফ রিপোর্টার: ইসরাইলের ক্ষমতাসীন লিকুদ পার্টির নেতা মেন্দি এন সাফাদির সাথে সাক্ষাতের বিষয়ে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদ বলেছেন, একই ব্যক্তির সাথে বিএনপি নেতা আসলাম চৌধুরী কথা বললে হয় রাষ্ট্রদ্রোহ আর প্রধানমন্ত্রীর ছেলের সোথে বৈঠক হলে হয় দেশপ্রেমিক। রোববার সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এই মন্তব্য করেন। রুহুল কবির রিজভী বলেন, একজন নিরীহ মানুষকে মিথ্যা তথ্য ও ষড়যন্ত্র করে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। এখন যখন থলের বিড়াল বের হলো তখন নাটক, উদ্দেশ্য প্রণোদিত বলা হচ্ছে। জনগণ তা মেনে নেবে না। তিনি বলেন, সরকার কতো ধরনের ষড়যন্ত্র ও চক্রান্তকারী হতে পারে, এর দৃষ্টান্ত হচ্ছে জয় ও মেন্দির বৈঠক। আজকে এই যে ঘটনা শুধু বিএনপি নয়, দেশের সমগ্র জনগোষ্ঠী জানতে চায় সরকার কি ব্যবস্থা নেয়। এক প্রশ্নের জবাবে রিজভী বলেন, সরকার মিথ্যা তথ্যের ওপর ভর করে বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দিচ্ছে, যাতে করে একটি কার্যকর আন্দোলন গড়ে উঠতে না পারে।

 

১ জুন থেকে ইবিতে ছুটি শুরু

স্টাফ রিপোর্টার: ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) পহেলা জুন থেকে গ্রীষ্মকালীন, পবিত্র মাহে রমজান, শবে কদর ও ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ১ মাস ১৭ দিন ছুটি শুরু হচ্ছে। আগামী ১৭ জুলাই পর্যন্ত এই ছুটি চলবে। এদিকে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ শিক্ষার্থীদেরকে ৩ জুনের মধ্যে আবাসিক হল ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছে। তথ্য প্রকাশনা ও জনসংযোগ দফরের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) আতাউল হক বলেন, ১ জুন থেকে ১৭ জুলাই পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস পরীক্ষা বন্ধ থাকবে এবং ১৮ জুলাই থেকে আগের মতো যথারীতি ক্লাস পরীক্ষা চলবে। তবে রমজান মাসে সকাল নয়টা থেকে দুপুর দুইটা পর্যন্ত সকল ধরনের প্রশাসনিক কার্যক্রম চলবে। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রভোস্ট কাউন্সিলের সভাপতি প্রফেসর ড.ইকবাল হোছাইন বলেন, গ্রীষ্মকালীন, পবিত্র মাহে রমজান, শবে কদর ও ঈদুল ফিতরের উপলক্ষে শিক্ষার্থীদের আবাসিক হলগুলো ৩ জুন থেকে ১৬ জুলাই পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। ১৭ জুলাই সকাল নয়টায় হলগুলো খুলে দেয়া হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *