দেশি টুকরো

১৬৪ যাত্রী নিয়ে ইউএস-বাংলার ফ্লাইটের জরুরি অবতরণ

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশের বেসরকারি ইউএস-বাংলার একটি ফ্লাইট যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করেছে। তবে মারাত্মক কোনো সমস্যা না পাওয়ায় কিছু সময় পর মালয়েশিয়াগামী উড়োজাহাজটি ঢাকা ছেড়ে যায়। বেসরকারি বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের (বেবিচক) জনসংযোগ কর্মকর্তা রেজাউল করিম শনিবার এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘আমি যতোটুকু জানতে পেরেছি, ইউএস-বাংলার বিএস-৩১৫ ফ্লাইটটি মালয়েশিয়ার উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার ১৫ মিনিট পর আবার যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে শাহজালাল বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করে।’ রেজাউল করিম আরও বলেন, ‘ইউএস-বাংলার সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। তারা জানিয়েছে, সমস্যা খুব মারাত্মক নয়।’ হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের এটিসি কর্মকর্তা ওহিদুল আলম বলেন, ‘ইউএস-বাংলার কুয়ালালামপুরগামী ফ্লাইটটি সকাল নয়টা ৩৩ মিনিটে ঢাকা থেকে রওনা দেয়ার পরে টেকনিক্যাল ত্রুটি দেখা দেয়। পরে ১৫ মিনিট পরে ফিরে আসে।’

এমপিওভুক্ত হলেন চার হাজার বেসরকারি শিক্ষক

স্টাফ রিপোর্টার: দীর্ঘদিন বঞ্চিত থাকার পর অবশেষে এমপিওভুক্ত হলেন চার হাজার ৬১ জন বেসরকারি শিক্ষক। গত শনিবার (২৪ মার্চ) মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরে (মাউশি) অনুষ্ঠিত বৈঠকে এই শিক্ষকদের এমপিওভুক্ত করা হয়। বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন মাউশি’র মহাপরিচালক অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান। মাউশি’র শিক্ষা অফিসার চন্দ্র শেখর হালদার জানান, বৈঠকে চার হাজার ৬১ জন বেসরকারি শিক্ষককে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে বৈঠক সূত্রে খবর, খুলনায় ৮৭৮, রাজশাহীতে ৮৩০, ঢাকায় ৫৫২, কুমিল্লায় ৩৭৮, ময়মনসিংহে ৩৬৪, রংপুরে ৩২৮, বরিশালে ৩১৩, চট্টগ্রামে ২০৮ ও সিলেটে ২০৭ এবং অনলাইনে একজন শিক্ষকসহ মোট চার হাজার ৬১ জন শিক্ষককে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে।

গাজী রাকায়তেয়ের বিরুদ্ধে পর্নোগাফি আইনে মামলা

স্টাফ রিপোর্টার: ফেসবুকে অশ্লীল বার্তা দেয়ার অভিযোগ এনে অভিনেতা ও নাট্যনির্মাতা গাজী রাকায়েতের বিরুদ্ধে পর্নোগ্রাফি আইনে মামলা করেছেন এক তরুণী। গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর শ্যামপুর থানায় মামলাটি করা হলেও গত শুক্রবার রাতে বিষয়টি জানাজানি হয়। এ বিষয়ে জানতে চাইলে শ্যামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.মিজানুর রহমান বলেন, ‘গাজী রাকায়েতের নাম ব্যবহার করে একটি ফেসবুক আইডি থেকে ওই তরুণীকে যে অশ্লীল প্রস্তাব দেয়া হয়েছিলো, সেই ঘটনার প্রেক্ষিতে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে।’ মামলার বিবরণীতে বলা হয়েছে, ‘গত ২৭ ফেব্রুয়ারি গাজী রাকায়েত কুটু নামে ফেসবুক আইডি থেকে আমার মেসেঞ্জারে কথা বলার সময় বিভিন্ন অশ্লীল, অনৈতিক এবং ধর্মীয় অনুভূতি পরিপন্থী বিভিন্ন ইঙ্গিতপূর্ণ প্রস্তাব দিলে আমি তা বন্ধ করার অনুরোধ জানাই। কিন্তু তিনি তা না করে জঘন্য রকম যৌন উত্তেজক কথা বলে আমাকে প্রলুব্ধ করার চেষ্টা করেন এবং উত্ত্যক্ত করেন। গাজী রাকায়েত একজন শ্রদ্ধেয় ব্যক্তি। তার আইডি থেকে এ ধরনের বক্তব্য আসায় আমি অত্যন্ত মর্মাহত হই।

মোশাররফ করিমকে যদি ক্ষমা চাইতে হয়  তবে অন্ধকার যুগ চলছে দেশে: তসলিমা

স্টাফ রিপোর্টার: ধর্ষণ ইস্যুতে নারীদের পোশাক নিয়ে জনপ্রিয় অভিনেতা মোশাররফ করিমের একটি মন্তব্য নিয়ে কয়েকদিন ধরেই তোলপাড় চলছে। আনা হয়েছে ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত’ দেয়ার অভিযোগ। এমন ঘটনার পর ক্ষমাও চেয়েছেন জনপ্রিয় এই অভিনেতা। পুরো ঘটনাটি নিয়ে সোশ্যাল সাইট ফেসবুকে নিজের মতামত ব্যক্ত করেছেন প্রখ্যাত নারীবাদী লেখিকা তসলিমা নাসরিন। নির্বাসিত এই লেখিকা মনে করেন, মোশাররফ করিমকে যদি ক্ষমা চাইতে হয়, তবে দেশে অন্ধকার যুগ চলছে।

নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক অ্যাকউন্টে তসলিমা লিখেছেন, ‘মোশাররফ করিম বাংলাদেশের টিভি নাটকের জনপ্রিয় অভিনেতা। তিনি সেদিন কিছু কথা বলেছেন স্টুডিওর দর্শকদের উদ্দেশে। মেয়েদের যৌন হেনস্থার জন্য পোশাক নাকি অন্য কিছু দায়ী! যা বললেন তা এমন কোনও বিপ্লবী কথা নয়। পোশাক যদি দায়ী, তাহলে ৭ বছর বয়সী মেয়ে কি কোনও যৌন উত্তেজক পোশাক পরে যে তাকে ধর্ষণের শিকার হতে হয়? বোরখা পরা মহিলাই বা কী কারণে যৌন হেনস্থার শিকার হয়?’

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *