দেশি টুকরো

প্রশ্নফাঁসের ৬ কারণ তুলে ধরলেন শিক্ষামন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার: প্রশ্নফাঁস নিয়ে করণীয় নির্ধারণে তিন মন্ত্রী এবং ছয়জন সচিবকে নিয়ে রুদ্ধদ্বার বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সম্মেলনকক্ষে মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৩টায় এ বৈঠক শুরু হয়। শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের সভাপতিত্বে সভায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল, ডাক, টেলিযোগাযোগ এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে প্রশ্নপত্র ফাঁসের বিষয়ে লিখিত পর্যবেক্ষণ তুলে ধরেন শিক্ষামন্ত্রী। তিনি বলেন, পাবলিক পরীক্ষাসমূহে লাখ লাখ পরীক্ষার্থী কয়েক হাজার কেন্দ্রে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে থাকে। পরীক্ষা গ্রহণের সঙ্গে প্রায় লক্ষাধিক শিক্ষক-কর্মচারী ও কর্মকর্তা জড়িত থাকেন।

নাহিদ বলেন, সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা গ্রহণে জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের প্রায় সব বিভাগের কর্মকর্তা এবং পরীক্ষা সংশ্লিষ্ট কাজে বিভিন্ন বিভাগের সম্পৃক্ততা রয়েছে। শুধু শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একক প্রচেষ্টায় সুষ্ঠুভাবে পাবলিক পরীক্ষা গ্রহণ কষ্টসাধ্য। তিনি বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধ করতে হলে এর উৎস এবং পরীক্ষা গ্রহণ পদ্ধতির ত্রুটিসমূহ চিহ্নিত করা প্রয়োজন। প্রশ্নপত্র ফাঁসের কয়েকটি বড় ক্ষেত্র রয়েছে।

স্বাধীনতা পুরস্কার পাচ্ছেন ১৬ বিশিষ্ট ব্যক্তি

স্টাফ রিপোর্টার: জাতীয় পর্যায়ে গৌরবোজ্জ্বল ও কৃতিত্বপূর্ণ অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ১৬ জন বিশিষ্ট ব্যক্তি ২০১৮ সালের রাষ্ট্রীয় সর্বোচ্চ সম্মান স্বাধীনতা পুরস্কার পাচ্ছেন। মঙ্গলবার এক বিজ্ঞপ্তিতে স্বাধীনতা পুরস্কারের জন্য মনোনীতদের তালিকা প্রকাশ করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। স্বাধীনতা ‍ও মুক্তিযুদ্ধে অবদানের জন্য এবার এ সম্মাননা পাচ্ছেন প্রয়াত কাজী জাকির হাসান, শহীদ বুদ্ধিজীবী এম এম এ রাশীদুল হাসান, প্রয়াত শংকর গোবিন্দ চৌধুরী, এয়ার ভাইস মার্শাল সুলতান মাহমুদ বীরউত্তম, প্রয়াত এম আব্দুর রহিম, প্রয়াত ভূপতি ভূষণ চৌধুরী ওরফে মানিক চৌধুরী, শহীদ লেফটেন্যান্ট মো. আনোয়ারুল আজিম, প্রয়াত হুমায়ুন রশীদ চৌধুরী, শহীদ আমানুল্লাহ মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান, শহীদ মতিউর রহমান মল্লিক, শহীদ সার্জেন্ট জহরুল হক ও আমজাদুল হক। এছাড়া অধ্যাপক ডা. এ কে এমডি আহসান আলী চিকিৎসাবিদ্যায়, অধ্যাপক এ কে আজাদ খান সমাজসেবায়, সেলিনা হোসেন সাহিত্যে এবং ড. মো. আব্দুল মজিদ খাদ্য নিরাপত্তায় এবার স্বাধীনতা পুরস্কার পাচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী ২৫ মার্চ রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে মনোনীতদের কাছে এ পুরস্কার তুলে দেবেন।

পিএসসির পরীক্ষায় আজীবন অযোগ্য এক প্রার্থী

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ রেলওয়ের উপসহকারী প্রকৌশলী (ওয়ে) পদের লিখিত পরীক্ষায় অসুদপায় অবলম্বন করায় মো. যোবায়দুল ইসলাম জান্নাত নামের এক পরীক্ষার্থীর বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি। সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীর লিখিত পরীক্ষা বাতিলসহ কর্ম-কমিশন কর্তৃক গৃহীত সকল পদে আবেদনের অযোগ্য ঘোষণা করা হয়েছে। পাশাপাশি তার বিরুদ্ধে ফৌজদারী ব্যবস্থাও গ্রহণ করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে পিএসসি।

পিএসসির পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (নন-ক্যাডার) ও অতিরিক্ত সচিব শেখ শাখাওয়াত্ হোসেন স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে মঙ্গলবার এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ৮ ফেব্রুয়ারি রেলওয়ের উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ওয়ে) পদের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। ০০২৭৩৬ রেজিস্ট্রেশনধারী পরীক্ষায় অসুদপায় অবলম্বন করে বাংলা, ইংরেজি, সাধারণ জ্ঞান ও টেকনিক্যাল বিষয়ে মোট ৪টি উত্তরপত্রের স্থলে ৮টি উত্তরপত্র দাখিল করেন। যা সরকারি কর্ম কমিশনের শৃঙ্খলামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ নীতিমালা-২০০০ অনুযায়ী শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

বাবুকে বিদায় জানাতে বাংলাদেশ সীমান্তে ‘বাহুবলী’র চাচা

স্টাফ রিপোর্টার: ভারতীয় সিনেমার ইতিহাসে সর্বকালের অন্যতম সেরা ব্যবসাসফল ছবি বাহুবলীতে চাচা ‘বিজ্জলাদেবা’ চরিত্রে অভিনয় করে তাক লাগিয়েছিলেন এম নাসের। তামিল সিনেমার বদৌলতে বাংলাদেশেও তিনি সমান পরিচিত। এবার সেই গুণী অভিনেতার সঙ্গে ভারতীয় ছবি ‘সিতার’তে শুটিং করেছেন বাংলাদেশের প্রখ্যাত অভিনেতা ফজলুর রহমান বাবু। প্রথম লটের শুটিং শেষে মঙ্গলবার সকালে বাবুকে বিদায় জানাতে ভারতের কোচবিহারের চ্যাংড়াবান্দা স্থলবন্দরে আসেন বাহুবলীর চাচা। শিগগিরই আবার দেখা হওয়ার প্রতিশ্রুতিও দিয়ে বিদায় নিয়েছেন দুই দেশের দুই গুণী অভিনেতা। জানা গেছে, বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে অভিনয়ের ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন ভারতের দক্ষিণের এই শক্তিমান অভিনেতা। বিদায় নেয়ার আগে তারা সবাই মিলে চা পান করেছেন। লালমনিরহাটের বুড়িমারী স্থলবন্দর দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন বাবু।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *