দক্ষিণ সুদানে গৃহযুদ্ধের আশঙ্কা : মার্কিন সেনা মোতায়েন

মাথাভাঙ্গা মনিটর: দক্ষিণ সুদান পরিস্থিতি গৃহযুদ্ধে নিমজ্জিত হওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা। রাজধানী জুবার সহিংসতা দেশজুড়ে ছড়িয়ে পড়ার পরিপ্রেক্ষিতে হুঁশিয়ার করে দিয়ে তিনি বলেছেন, দক্ষিণ সুদানে সাম্প্রতিক ভয়াবহ সহিংসতা দেশটিকে আবার তার ফেলে আসা কালো দিনগুলোতে নিয়ে যেতে পারে। দেশটিতে মার্কিন জনগণ ও স্বার্থ রক্ষায় ওবামা বুধবার ৪৫ সেনাও মোতায়েন করেছেন। মার্কিন কংগ্রেসকে লেখা এক চিঠিতে ওবামা দক্ষিণ সুদানে অবস্থানরত মার্কিন নাগরিকদের জীবন ও সম্পদ রক্ষার জন্য সেনা পাঠানোর কথা জানান। দক্ষিণ সুদান পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত সেনা মোতায়েন রাখা হবে। দক্ষিণ সুদানের প্রেসিডেন্ট সালভা কির গত সপ্তায় তার সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট রেইক ম্যাকারের বিরুদ্ধে অভ্যুত্থান প্রচেষ্টার অভিযোগ তোলা এবং সে প্রচেষ্টা নস্যাৎ করে দেয়ার দাবি করার পর থেকেই সহিংসতার শুরু এবং এতে এ পর্যন্ত ৫শ’ মানুষ নিহত হওয়ার খবর এসেছে। সহিংসতা থেকে বাঁচতে জাতিসংঘ কম্পাউন্ডে আশ্রয় নিয়েছে ৩৪ হাজার মানুষ। বৃহস্পতিবার সহিংসতায় দু ভারতীয় শান্তিরক্ষীও মারা গেছে। আরো মানুষ হতাহত হওয়ার আশঙ্কা করছে জাতিসংঘ। বৃহস্পতিবার যুক্তরাষ্ট্র খুব বেশি জরুরি কাজে নিয়োজিত ছাড়া তার সব দূতাবাস কর্মীদের দক্ষিণ সুদান ত্যাগের নির্দেশ দিয়েছে। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে দক্ষিণ সুদানের রাজধানী জুবায় অবস্থিত মার্কিন মিশনের স্বাভাবিক কাজকর্ম্ও বন্ধ রয়েছে। ২০১১ সালে দক্ষিণ সুদান স্বাধীন হওয়ার আগে সুদানে ২২ বছরের গৃহযুদ্ধে ১০ লাখেরও বেশি মানুষ নিহত হয়।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *