চুয়াডাঙ্গা জেলাকে ভিক্ষুকমুক্ত করতে জেলা প্রশাসনের বিশেষ উদ্যোগ

 

নতুন আরও ৪৪ জন ভিক্ষুককের নাম তালিকাভুক্ত : করা হবে পুনর্বাসন

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গায় নতুন করে আরও ৪৪ জন ভিক্ষুককে পুনর্বাসন করতে কাজ করছে জেলা প্রশাসন। ইতোমধ্যে ভাসমানসহ মোট ৪৪ জন ভিক্ষুকের তালিকা প্রস্তুত করা হয়েছে। আগামী বৃহস্পতিবার এদেরকে প্রয়োজনীয় উপকরণ দেয়ার মাধ্যমে পুনর্বাসন করা হবে। এদের মধ্যে যাচাই-বাছাই করে যোগ্যদের সমাজসেবা পুনর্বাসন কেন্দ্রে স্থায়ীভাবে পুনর্বাসন করা হবে বলে জানা গেছে।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, খুলনা বিভাগকে ভিক্ষুকমুক্ত করতে বিভাগীয় কমিশনার বিশেষ উদ্যোগ হাতে নিয়েছেন। এরই অংশ হিসেবে চুয়াডাঙ্গা জেলার বিভিন্ন স্থানে ভিক্ষুকদের পুনর্বাসন করতে ইতিমধ্যে প্রয়োজনীয় উপকরণ বিতরণ করা হয়েছে। গত কয়েকদিন থেকে নতুন করে আরও ৪৪ জন ভিক্ষুকের তালিকা প্রস্তুত করা হয়েছে। যাদের অনেকেই ভাসমান ও বিভিন্ন উপজেলার। এদের প্রত্যেককেই প্রয়োজনীয় উপকরণ দিয়ে পুনর্বাসন করা হবে এবং যাচাই-বাছায়ের মাধ্যমে যোগ্যদের সমাজসেবা পুনর্বাসন কেন্দ্রে স্থায়ীভাবে পুনর্বাসন করা হবে। এ উপলক্ষে গতকাল রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে নতুন তালিকাভুক্ত ভিক্ষুকদের সাথে কথা বলেন জেলা প্রশাসক সায়মা ইউনুস। এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) দেবপ্রসাদ পাল, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জসিম উদ্দিন, ভারপ্রাপ্ত নেজারত ডেপুটি কালেক্টর ফখরুল ইসলাম, সমাজসেবা অধিদফতরের উপ-পরিচালক আব্দুল লতিফ শেখ, দামুড়হুদা উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা ছানোয়ার হোসেন, জেলা নাজির আইনাল হক, সাধারণ শাখার সিএ নজির আহমেদ প্রমুখ। এসময় জেলা প্রশাসক ভবিষ্যতে যেন ভিক্ষাবৃত্তি না করে সে বিষয়ে নির্দেশ দেন। উল্লেখ্য, গত শুক্রবার শহরের গোরস্তান ও কোর্ট মসজিদের সামনে ভিক্ষারত ভাসমান ১৯ জনসহ ৪৪ জন ভিক্ষুকের নাম তালিকাভুক্ত করে জেলা প্রশাসন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *