চুয়াডাঙ্গায় হাম-রুবেলা টিকাদান ক্যাম্পেইন উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার: হাম-রুবেলা টিকাদান ক্যাম্পেইন উদযাপন উপলক্ষে গতকাল বুধবার বেলা ১১টায় চুয়াডাঙ্গা সিভিল সার্জন কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। আগামী ২৫ জানুয়ারি থেকে ১৩ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চুয়াডাঙ্গাসহ দেশব্যাপি কর্মসূচি পালনের লক্ষ্যে এ সংবাদ সম্মেলন করা হয়। চুয়াডাঙ্গা জেলায় ৩ লাখ ৪৪ হাজার ১৮৭ জন (৯ মাস থেকে ১৫ বছর বয়সী) শিশুকে এ টিকার আওতায় আনা হবে বলে জানিয়েছেন সিভিল সার্জন ডা. খন্দকার মিজানুর রহমান। জেলার ৯৪০টি কেন্দ্রে একযোগে এ কর্মসূচি পালন করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন ইপিআই সুপার আব্দুর রাজ্জাক, জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়ক আব্দুর রাজ্জাক, স্বাস্থ্য শিক্ষা কর্মকর্তা রবজেল হোসেন ও জেলা পরিসংখ্যানবিদ আকতার হোসেন।

জীবননগর ব্যুরো জানিয়েছে, জীবননগর পৌরসভার উদ্যোগে গতকাল বুধবার সকালে পৌরসভার কমিউনিটি সেন্টারে শিক্ষক ও শিক্ষক প্রতিনিধি, জনপ্রতিনিধি ও গণমাধ্যম কর্মীদের নিয়ে এক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। কর্মশালায় পৌর মেয়র হাজি মো. নোয়াব আলীর সভাপতিত্বে হাম-রুবেলার বিষয়ে আলোচনা করেন প্রধান অতিথি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. আবু হাসানুজ্জামান নূপুর। আগামী ২৫ জানুয়ারি হতে ১৩ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ২১তম জাতীয় টিকাদান কর্মসূচিতে ০-৫ বছর বয়সী শিশুদের দু ফোঁটা পোলিও টিকা খাওয়ানো হবে এবং ৯ মাস থেকে ১৫ বছরের কম বয়সী সকল শিশুকে দু ফোঁটা পোলিও টিকার সাথে একটি করে এমআর টিকা প্রদান করা হবে। যেসব শিশু আগে এসব টিকা নিয়েছে তাদেরকেও এ ক্যাম্পেইনের আওতায় আনা হবে। প্রথম ধাপে প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এবং দ্বিতীয় ধাপে নির্ধারিত কেন্দ্রে এ কাম্পেইন পরিচালনা করা হবে বলে জানানো হয়। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আমজাদ হোসেন ও পৌর সচিব গাজী আবুল কাশেম। উপস্থিত ছিলেন- পৌর কাউন্সিলর হযরত আলী, আত্তাব উদ্দিন, নবী শাহ্, মাহফুজা খাতুন বিউটি, কাজি নাসির ইকবাল ঠাণ্ড, পৌর হিসাবরক্ষক আনম. মোস্তফা কামাল ও টিকাদান সুপারভাইজার জামাল উদ্দিন প্রমুখ।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *