গাংনীর জোড়পুকুরিয়া ও তেরাইলে ছাত্রছাত্রীদের মানববন্ধন

শিক্ষকদের নামে দায়েরকৃত হত্যা মামলা প্রত্যহারের দাবিতে

 

গাংনী প্রতিনিধি: মেহেরপুর গাংনী উপজেলার জোড়পুকুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও তেরাইল-জোড়পুকুরিয়া ডিগ্রি কলেজের শিক্ষক ও সভাপতির নামে দায়েরকৃত হত্যা মামলা প্রতাহারের দাবিতে পৃথক দুটি মানববন্ধন করেছে প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে তেরাইল কলেজের সামনে এবং মঙ্গলবার জোড়পুকুরিয়া বাজারে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

জোড়পুকুরিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক আনিছুর রহমানের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন জোতি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খুরশিদা খাতুন, সহকারী শিক্ষক আব্দুল হান্নান, সান রাইজ প্রি-ক্যাডেটের অধ্যক্ষ আসম সামসুল আলম ও মাল্টিমিডিয়া প্রি-ক্যাডেটের অধ্যক্ষ দেলোয়ার হোসেনসহ সংশ্লিষ্টরা। ছাত্রছাত্রী ছাড়াও স্থানীয় লোকজন মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, গত ২১ জুলাই রাতে জোড়পুকুরিয়া গ্রামের লাবলু হোসেনকে সন্ত্রাসীরা হত্যা করে। বিষয়টিকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করতে প্রতিপক্ষ রাজনৈতিক দলের লোকজন প্রধান শিক্ষক হাসান আল নুরানী, পরিচালনা পর্যদের সভাপতি ফজলুল হক বিশ্বাস ও বিদ্যুতসাহী সদস্য এনায়েত উল্লাহ হকের নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে সুষ্ঠু নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত খুনিদের খুঁজে বের করার পাশাপাশি নির্দোষ ব্যক্তিদের অব্যাহতির দাবি জানানো হয়।

এদিকে একই মামলার আসামি করা হয়েছে তেরাইল জোড়পুকুরিয়া ডিগ্রি কলেজের বাংলা বিভাগের প্রভাষক জাবলুন্নবীকে। তার মুক্তি ও মামলা থেকে অব্যাহতির দাবিতে গতকাল কলেজ কর্তৃপক্ষ মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছে। অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফার সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন সহকারী অধ্যক্ষ মাহবুবুল হক, সহকারী অধ্যাপক আরিফুল ইসলাম, রেজাউল ইসলাম ও মাছুম-উল হক মিন্টুসহ শিক্ষক ও ছাত্রছাত্রীবৃন্দ। দাবি পুরণ না হলে কঠোর কর্মসূচির ঘোষণা দেন বক্তারা।

Leave a comment

Your email address will not be published.