আলমডাঙ্গার বেলগাছিতে মাদকসেবীকে মারধরের অভিযোগ

আলমডাঙ্গা ব্যুরো: আলমডাঙ্গার বেলগাছি গ্রামের মাদকব্যবয়ায়ী কালামের বিরুদ্ধে এক মাদকসেবিকে মারধর করে আটকে রাখার অভিযোগ উঠেছে। পরে পুলিশের মধ্যস্থতায় ওই মাদকসেবী যুবক ছাড়া পেয়ে বাড়ি ফিরেছে বলে জানা যায়।
গ্রামসূত্রে জানা গেছে, বেলগাছি গ্রামের সাহেব আলীর ছেলে কালাম গ্রামের চিহ্নিত মাদকব্যবসায়ী। সম্প্রতি সে মাদকব্যবসা, চুরি ও ডাকাতিসহ বেশ কয়েকটি মামলায় জেল থেকে জামিনে মুক্ত হয়ে বাড়ি ফেরে। বাড়ি ফিরে আবারও শুরু করে মাদকব্যবসা। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর উপজেলার ভোদুয়া গ্রামের সাগর ও শিলন নামের ২ যুবক কালামের বাড়ি গাঁজা কিনতে যায়। সে সময় তারা কালামের স্ত্রীর সাথে তর্কে জড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি কালাম জানতে পেরে বাড়িতে ছুটে যায়। সে সময় শিলন ও সাগরের সাথে কালামের মারামারির ঘটনা ঘটে। এতে শিলন ও কালাম দুজনেই রক্তাক্ত জখম হয়। এক পর্যায়ে শিলন পালিয়ে গেলেও কালাম সাগর নামের যুবককে বাড়ির পাশের ক্লাবঘরে আটকে রাখে। এসআই মিজান ঘোলদাড়ি ক্যাম্পে যাওয়ার পথে ঘটনাস্থলে পৌঁছেন। পরে এসআই মিজান ও স্থানীয় মেম্বার জাহাঙ্গীর আলমের মধ্যস্থতায় সাগর মুক্তি পেয়ে বাড়ি ফেরে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *