আঠারোখাদার শিলুর বিরুদ্ধে কলেজছাত্রীর যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তুলে আলমডাঙ্গা থানায় নালিশ

 

স্টাফ রিপোর্টার: আলমডাঙ্গার আঠারোখাদা দক্ষিণপাড়ার শিলুর বিরুদ্ধে কলেজছাত্রীর যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তুলে থানায় নালিশ করা হয়েছে। চুয়াডাঙ্গা পলাশপাড়াস্থ মানবতা সংস্থার নেতৃবৃন্দের সহযোগিতায় নির্যাতনের শিকার কলেজছাত্রী বাদী হয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার আলমডাঙ্গা থানায় অভিযোগপত্র পেশ করা হয়।

অভিযোগটি আলমডাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জের অবর্তমানে কর্তব্যরত অফিসার গ্রহণ করেন। মোবাইলফোনে অফিসার ইনচার্জ ইন্সপেক্টর মনিরুদ্দিন মোল্লা মানবতা সংস্থার নেতৃবৃন্দের সাথে অসৌজন্যমূলক কথা বলেন বলে অভিযোগ করা হয়েছে। নির্যাতনের শিকার হওয়া মানুষ মামলার জন্য সরাসরি থানায় না এসে কেন ওসব সংস্থায় যায়? এরকম প্রশ্ন তুলে অসৌজন্যমূলক কথা বলার কারণে অফিসার ইনচার্জের বিরুদ্ধে পুলিশ সুপারের নিকট মৌখিক অভিযোগ জানানো হয়েছে। মানবতা সংস্থা এ তথ্য জানিয়ে এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, আঠারোখাদা গ্রামের এক কৃষকের কলেজপড়ুয়ায় মেয়ে গত ১১ সেপ্টেম্বরর গ্রামেরই অদূরবর্তী রাস্তায় নূড়োর মাঠ নামকস্থানে একই গ্রামের আব্দুস সাত্তারের ছেলে বিবাহিত শিলু জাপটে ধরে শ্লীলতাহানি ঘটিয়েছে। যৌন নিপীড়নের শিকার কলেজছাত্রীর আবেদনের প্রেক্ষিতে গতকাল মানবতা সংস্থার নির্বাহী পরিচালক অ্যাড. মানি খন্দকারসহ সংশ্লিষ্টরা অভিযোগকারীকে সাথে নিয়ে আলমডাঙ্গা থানায় গিয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ১০ ধারায় অভিযোগটি পেশ করেন। থানায় অফিসার ইনচার্জ না থাকায় তা তাৎক্ষণিকভাবে রেকর্ডের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

Leave a comment

Your email address will not be published.